শীতকালে চুলের যত্নে গ্লিসারিন

|

শীতকালে ত্বকের যত্ন নেয়ার পাশাপাশি গ্লিসারিন চুলেরও খেয়াল রাখে। চুলের জট ছাড়াতে যেসব প্রসাধনী বাজারে ব্যবহৃত হয়, এসবের মধ্যে ডিট্যাঙ্গলিং লিক্যুইড নামক একটি উপাদান থাকে। যার প্রধান উপাদান হিসেবে থাকে গ্লিসারিন। জেনে নেয়া যাক, গ্লিসারিনের যত গুণাগুণ।

শীতের শুষ্ক আবহাওয়ায় চুলের স্বাভাবিক আর্দ্রতা হারিয়ে যায়। গ্লিসারিন চুলের আর্দ্রতা বজায় রাখতে সাহায্য করে। শ্যাম্পু করার পর বাজারে চলতি কন্ডিশনারের পরিবর্তে চুলে লাগাতে পারেন কন্ডিশনার।

সম পরিমাণ পানি ও গ্লিসারিন এক সঙ্গে মিশিয়ে একটি স্প্রে বোতলে ভরে রাখুন। হঠাৎ করেই চুল অত্যধিক শুষ্ক ও রুক্ষ হয়ে পড়লে জল ও গ্লিসারিনের মিশ্রণটি স্প্রে করে নিতে পারেন।

শীতকালে শুষ্ক আবহাওয়ার কারণেই চুলের আগা ফাটার সমস্যা প্রবল হয়। এই সমস্যা কমাতে ব্যবহার করতে পারেন গ্লিসারিন। অল্প গ্লিসারিন হাতে নিয়ে ভেজা চুলের ডগাতে লাগাতে পারেন। এতে চুলের গো়ড়া শুকিয়ে গেলেও চুলের আর্দ্রতা বজায় থাকবে।

বছরের অন্যান্য সময়ের চেয়ে শীতকালে খুশকির সমস্যা প্রবল হয়। খুশকি প্রতিরোধে অস্ত্র হতে পারে গ্লিসারিন। অল্প পরিমাণে গ্লিসারিন হাতে নিয়ে হালকা হাতে মাথার ত্বকে মাসাজ করে নিন। জোরে জোরে ঘষবেন না। কারণ গ্লিসারিন চুলের গোড়া নরম করে দেয়। ফলে চুল পড়ার আশঙ্কা থাকে।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply