উপসর্গহীন করোনা রোগীরা কতটা ঝুঁকিপূর্ণ, জানেন?

|

ছবি: সংগৃহীত।

অনেকের করোনা শনাক্ত হলেও উপসর্গ দেখা যায় না। আবার কারও ক্ষেত্রে উপসর্গ থাকলেও তা খুবই মৃদু। এমন রোগী সতর্ক না হয়ে বাড়ির বাইরে যাওয়া অব্যাহত রাখলে ভাইরাস ছড়ানোর আশঙ্কা বেশি।

উপসর্গহীন রোগীদের ঝুঁকি কতটা

উপসর্গহীন হলেও আক্রান্ত ব্যক্তির হঠাৎ করে কমে যেতে পারে রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা। একে হ্যাপি হাইপক্সিয়া বলে। এ ক্ষেত্রে রোগী নিজেও টের পান না, তার অক্সিজেন কমে যাচ্ছে। স্বাভাবিক জীবন যাপন করেন। তাই উপসর্গহীন রোগীদেরও পালস অক্সিমিটারের মাধ্যমে নিয়মিত রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা মাপতে হবে।

উপসর্গহীন রোগীদের যা করতে মানা

• উপসর্গ না থাকলেও পরিশ্রম হয়, এমন কাজ থেকে বিরত থাকুন। প্রচুর জল খান, বিশ্রাম নিন এবং পুষ্টিকর খাবার খান।

• রক্তে অক্সিজেনের মাত্রা কমতে থাকলে বা হঠাৎ করে বমি, পাতলা পায়খানা, বুকে ব্যথা, পেট ব্যথা ইত্যাদি শারীরিক সমস্যা দেখা দিলে নিজে চিকিৎসা করতে যাবেন না। এই পরিস্থিতিতে দ্রুত হাসপাতালে ভর্তি হওয়াই ভালো।

• বেশিরভাগ উপসর্গহীন রোগীর তেমন কোনও ওষুধের প্রয়োজন হয় না। তাই চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া নিজে কোনও ওষুধ খাবেন না।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply