ঘোড়ায় চড়ে বিয়ে করতে গেলেন কনে!

|

ঘোমটা দিয়ে মুখ ঢেকে বসে থাকার কথা ছিল তার৷ কিন্তু তা করেননি তিনি। ছেলেমেয়ের মধ্যে কোনো পার্থক্য নেই বলে মনে করেন তিনি। তাই নিজের বিয়েতে তিনি গেলেন ঘোড়ায় চড়ে। ছেলেরা যা পারে, মেয়েরাও তাই পারে- এটা বোঝাতেই এ উদ্যোগ নিলেন এ তরুণী।

খবরে বলা হয়েছে, ঘোড়ায় চড়ে বিয়ে করতে যাওয়ার পেছনে পরিবারের সম্পূর্ণ সমর্থন ছিল। নেহা কিছার নামে ওই মেয়েটি নিজে একজন আইআইটি গ্রাজুয়েট। রাজস্থানের নওয়ালগড়ের ঝুনঝুনু জেলায় সম্প্রতি এ ঘটনা ঘটে।

রীতি অনুযায়ী রাজস্থানে বিয়ের আগে বানডোরি নামে একটি আচার পালন করা হয়। সেই আচারের অংশ হিসেবেই নেহাকে দেখা গেল ঘোড়ায় চড়ে অনুষ্ঠানস্থলে যেতে।

মথুরা রিফাইনারিতে ইন্ডিয়ান অয়েলের অফিসার হিসেবে কাজ করেন নেহা। তার পরিবার সবসময়েই চেয়ে এসেছেন, ছেলের মতোই মানুষ হোক তাদের মেয়ে৷ কোথাও কোনও খামতি রাখেননি তারা। নেহার মধ্যেও সেই ভাবনা কাজ করেছে৷ ছেলেমেয়ের মধ্যের সেই পার্থক্য মুছে ফেলতেই নেহা ও তার পরিবারের এমন উদ্যোগ বলে জানিয়েছেন তারা৷









Leave a reply