যে কারণে বিয়ের আগে বারবার ক্লিনিকে যাচ্ছেন ক্যাটরিনা

|

ছবি: সংগৃহীত

দু’দিন আগেই মুম্বাইয়ের একটি ক্লিনিকে যেতে দেখা গিয়েছিল ক্যাটরিনা কাইফকে। রোববার দুপুরে ফের সেই ক্লিনিকেই তাকে যেতে দেখা গেলো। এখন নেটিজেনদের অনেকেই জল্পনা শুরু করেছেন, বিয়ের আগে ক্যাটরিনা কেনো বারবার ক্লিনিকে যাচ্ছেন? পরে অবশ্য তার কারণটাও জানা গেছে। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

খবরে বলা হয়, গত শুক্রবার ক্যাটরিনা কাইফ ও ভিকি কৌশল খাতায় কলমে বিয়ে সেরে ফেলেছেন। তারা ১৯৫৪ সালের বিশেষ বিবাহ-আইনে বিয়ে করেছেন বলে জানানো হয়েছে। তারপরে রাজস্থানের বিলাসবহুল হোটেলে ৬ থেকে ১১ ডিসেম্বর পর্যন্ত সাড়ম্বরে বিয়ে হবে বলে জানা গিয়েছে। রাজস্থানের সওয়াই মাধোপুর জেলাশাসকের এক চিঠি ছড়িয়ে পড়ে নেটমাধ্যমে। সেই চিঠিতে ‘ভিক্যাট’-এর বিয়ের জন্য বিশেষ বৈঠকের আয়োজন করা হয়েছিল বলে দাবি করা হয়েছে।

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম দাবি করেছে, ক্লিনিকে গিয়ে কিছু নিয়মমাফিক পরীক্ষা করিয়েছেন ক্যাট। পাশাপাশি নিয়মিত জিম করছেন। আর একটি ফিজিও ক্লিনিকেও যাচ্ছেন। অসুস্থতা নয়, ফিটনেস নিয়ে অধিক সচেতনতার জন্যই ক্যাটরিনাকে বারবার ক্লিনিকে যেতে দেখা যাচ্ছে বলে জানানো হয়।

আনন্দবাজার জানায়, ভিকি ক্যাটের বিয়েতে ফোন ব্যবহার করা যাবে না। ছবি তোলা যাবে না। বিয়েবাড়ি থেকে বাইরের কারও সাথে যোগাযোগ করা যাবে না। গোপন কোড না জানলে বিয়েতে যাওয়া যাবে না। আমন্ত্রিতদের জন্য এমনই বেশ কিছু বিধিনিষেধ তৈরি হয়েছে ভিকি-ক্যাটরিনার বিয়েতে। এই খবর শুনে সাড়া পড়ে গিয়েছে নেটমাধ্যমে। টুইটার ব্যবহারকারীরা দুই তারকার বিয়ে ঠাট্টা-মশকরায় মেতেছেন। কেউ লিখছেন, ভিকি-ক্যাটরিনার বিয়েতে ঢুকতে গেলে কঠিন অঙ্ক সমাধান করতে হবে। কেউ আবার লিখছেন, এ তো বিয়ে নয়! মিশন ইম্পসিবল যেন। কেউ আবার এই দুই তারকার সমালোচনাও করছেন।

আরও পড়ুন: ভিকি-ক্যাটরিনার বিয়ে নিয়ে মুখ খুললেন কিয়ারা

ইউএইচ/


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply