চিকিৎসকের ভুলে মর্গের ফ্রিজে যুবক, ময়নাতদন্তের সময় জানা গেলো জীবিত

|

ছবি: সংগৃহীত।

দুর্ঘটনার শিকার ভারতের উত্তরপ্রদেশের মোরাদাবাদের এক যুবককে প্রথমে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক। নিয়ম অনুযায়ী পাঠানো হয় মর্গে। লাশ হিম করা মর্গের সেই ফ্রিজের মধ্যেও সাতঘণ্টা বেঁচে ছিলেন যুবক। পরে ভুল বুঝতে পেরে ফ্রিজ থেকে বের করা হলেও এতো ধকল নিতে পারেননি তিনি। চারদিন চিকিৎসার পরও অবশেষে মারা গেলেন সেই যুবক।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজার পত্রিকার তথ্য বলছে, গত ১৮ নভেম্বর সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হন সেই যুবক। পরিবারের সদস্যরা তিনটি হাসপাতাল ঘুরে অবশেষে নিয়ে আসে মোরাদাবাদ জেলা হাসপাতালে। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করলে তাকে মর্গে পাঠানোর ব্যবস্থা করা হয়।

এরপর ময়নাতদন্তের সময় পরিবারের অনুমতি নিতে তাদের ডেকে পাঠানোর পরই ভুল ভাঙে। সাথে সাথেই ওই যুবককে চিকিৎসা দেয়া হয়। এরপর টানা চার দিন চিকিৎসা দিয়েও বাঁচানো যায়নি তাকে।

পরিবারের অভিযোগ, যে চিকিৎসক তখন ডিউটিতে ছিলেন তিনিই চেকআপ করেন, তবে চিকিৎসা করেননি। চেকআপের পর তিনি বলেন, হদ্স্পন্দন নেই, রক্তচাপও নেই। তিনি নাকি মারা গেছে।

এ নিয়ে সংশ্লিষ্ট হাসপাতাল তদন্তের আশ্বাস দিলেও ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে অবহেলার অভিযোগ দায়ের করেছে ভুক্তভোগী পরিবার।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply