বিয়ের অনুষ্ঠানের গানের শব্দে হার্ট অ্যাটাকে মারা গেলো ৬৩ মুরগি

|

ছবি: সংগৃহীত।

বিয়ের অনুষ্ঠান মানেই হৈ-হল্লা, উচ্চ শব্দে গান-বাজনা, নাচ এবং ঝলমলে পোশাকের ব্যান্ড পার্টি। আর এমনই এক বিয়ের অনুষ্ঠানের কারণে খামারের ৬৩টি মুরগি মারা গেছে বলে অভিযোগ করেছেন ভারতের ওড়িশার এক খামারি।

টাইমস অফ ইন্ডিয়ার প্রতিবেদনে জানা যায়, ভারতের ওড়িশায় রবিবার (২১ নভেম্বর) স্থানীয় সময় মাঝরাতে এ ঘটনা ঘটে। খামারটির মালিক রণজিৎ কুমার পারিদার অভিযোগ, ওই বিয়ের অনুষ্ঠানে কান ছিঁড়ে যাওয়ার মতো শব্দে বাদ্যযন্ত্র বাজানো হচ্ছিল। ওই শব্দের কারণেই মুরগিগুলো মারা যায়।

পারিদা আরও বলেন, উচ্চমাত্রার শব্দে মুরগিগুলো ভয় পাচ্ছিল দেখে আমি সেখানকার লোকজনকে বলেছিলাম ভলিউম কমাতে। কিন্তু তারা শোনেনি উল্টে বরের বন্ধুরা আমার সাথে অনেক দুর্ব্যবহার করেছে। একজন ভেটেরিনারি চিকিৎসকের বরাত দিয়ে তিনি আরও বলেন, মুরগিগুলো হার্ট অ্যাটাকে মারা গেছে। ঘটনার পর বিয়েবাড়ির লোকজনের কাছে ক্ষতিপূরণ চাইলে তারা তা দিতে অস্বীকৃতি জানায়। এরপর তিনি বিষয়টি নিয়ে পুলিশের কাছে অভিযোগ করেন।

হিন্দুস্তান টাইমসকে প্রফেসর মিশ্রা বলেন, উচ্চমাত্রার শব্দে পাখিদের মধ্যে হৃদরোগের ঝুঁকি বেড়ে যায়। মুরগির একটি শারীরবৃত্তীয় প্রক্রিয়া দিন-রাতের আলো বা আঁধারের মাধ্যমে প্রাকৃতিকভাবে নিয়ন্ত্রিত হয়। উচ্চমাত্রার শব্দের মাধ্যমে সৃষ্ট হঠাৎ উত্তেজনা অথবা মানসিক অবস্থায় তাদের শরীরের স্বাভাবিক প্রক্রিয়াকে ব্যাহত করে।

তবে ওড়িশার ঘটনাটি পারস্পারিক সমঝোতার মাধ্যমে মিটিয়ে ফেলার জন্য বলেছে পুলিশ। উভয়পক্ষই পুলিশের সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছে।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply