সংসদে কাঁদুনে গ্যাস

|

প্রতিবেশি মন্টেনেগ্রোর সাথে স্থল সীমান্ত চুক্তির বিল আইন সভায় অনুমোদন দিয়েছে কসোভো। বিরোধী দল বিতর্কিত এই বিলটি পাস হওয়া ঠেকাতে সংসদে কাঁদুনে গ্যাস নিক্ষেপ করে।

বৃহস্পতিবার এই ঘটনাটি ঘটার পর পুরো ভবন খালি করা হয়।

ভিডিও ফুটেজ থেকে দেখা যায়, ১২০ আসনের সংসদে কাঁদুনে গ্যাসের কৌটা ছুঁড়ে মারা হলে আইন প্রণেতারা মুখে হাত দিয়ে দরজার দিকে ছুটতে থাকেন।

বিরোধী দলের নেতা আলবিন কুর্তি অভিযোগ করে, “বিলটি পাস হয়েছে কেননা কাঁদুনের গ্যাস ছোঁড়ার পর দলের বেশির ভাগ আইন প্রণেতাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ ধরে নিয়ে গেছে।”

ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য পদের পেতে হলে পূর্ব শর্ত হিসেবে এই স্থল সীমান্ত চুক্তির বিলটি কসোভোর সংসদে অনুমোদন দিতে হত। মন্টেনেগ্রোর সংসদ আগেই এই বিলটি অনুমোদন দিয়েছে।

কিন্তু কসোভোর বিরোধী দলে দাবি, ২০১৫ সালে স্বাক্ষরিত এই চুক্তিটি সংসদে অনুমোদনের মাধ্যমে কার্যকর করা হলে দেশটি ২০ হাজার একর জমি হারাবে।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের দূত নাতালিয়া অ্যাপোস্তোলোভা বলেন, “কসোভোর সংসদে কাঁদুরে গ্যাস নিক্ষেপের ঘটনায় আমরা হতবাক! ইউরোপের একটি দেশের সংসদে এ ধরনের বিপদ জনক কৌশল কসোভোকে পেছনে দিকে টেনে নিয়ে যাচ্ছে।”

সার্বিয়া থেকে ২০০৮ সালে স্বাধীনতা লাভ করে কসোভো। ইউরোপীয় ইউনিয়নের বেশির ভাগ রাষ্ট্রই দেশটিকে স্বীকৃতি দিয়েছে।

যমুনা অনলাইন: এফএইচ





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply