‘দল দুই ভাগে বিভক্ত হওয়ার কারণেই বিশ্বকাপে ব্যর্থ হচ্ছে ভারত’

|

পাকিস্তানের সাবেক স্পিড স্টার শোয়েব আকতার। ছবি: সংগৃহীত

মারিয়া হোসেন:

ভারতীয় দল দুই ভাগে বিভক্ত, সে কারণেই টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ব্যর্থ হয়েছে ভিরাট কোহলির দল। এমন দাবি করেছেন পাকিস্তানের সাবেক স্পিড স্টার শোয়েব আকতার।

তবে টিম ইন্ডিয়ার ক্রিকেটার ও তাদের পরিবারের প্রতি অন্যায় আচরণ করছে ভারতীয় গণমাধ্যম এমন অভিযোগও করেন শোয়েব। এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন হিসেবে টপ ফেভারিট ছিল ভারত। কিন্তু পরপর দুই ম্যাচে বিশাল ব্যবধানে হারের পর বিশ্বকাপ থেকে প্রায় ছিটকে গেছে টিম ইন্ডিয়া।

হতাশাজনক পারফরম্যান্সের কারণ খুঁজতে গিয়ে বিশেষজ্ঞরা যে যার মতামত দিয়েছেন। বায়ো বাবল থেকে শুরু করে ক্রিকেটারদের ফিটনেস, ভুল শট নির্বাচন- উঠে এসেছে বিভিন্ন কারণ। কপিল দেব, বীরেন্দ্র শেবাগ- প্রত্যেকেই সমালোচনা করেছেন ভারতীয় দলের। কিন্তু সবচেয়ে বড় বোমা ফাটালেন বুঝি শোয়েব আখতার।

পাকিস্তানের সাবেক এই পেসার ভারতের খেলা বিশ্লেষণ করতে গিয়ে দাবি করেছেন, ভিরাট কোহলিকে নিয়ে ভারতীয় দল দ্বিধাবিভক্ত। বলেন, পরিষ্কারভাবেই ভারতীয় দল দুই ভাগে বিভক্ত। আমি জানি না কেনো এমনটা হচ্ছে। অধিনায়ক হিসেবে কোহলির এটাই শেষ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। হতে পারে সে কয়েকটা ভুল সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কিন্তু সে তারকা খেলোয়াড়।

কিছুদিন আগেও কোহলি বনাম রোহিতের ‘ঠাণ্ডা যুদ্ধ’ সবারই জানা ছিল। কোহলির নেতৃত্ব নিয়ে দলের কিছু সিনিয়র ক্রিকেটার বোর্ডকে অভিযোগ করেছিলেন। এরপরেই দল নাকি দু’টি ভাগে বিভক্ত হয়ে যায়। পরে অবশ্য দু’জনই সে কথা অস্বীকার করেন। কিন্তু নিন্দুকদের গুঞ্জনকেই এবার যেনো এগিয়ে দিলেন রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস।

ক্রিকেটার হিসেবে কোহলিকে কখনও সমালোচনা করা উচিত নয় বলে উল্লেখ করেন শোয়েব আখতার। যদিও ভারত অধিনায়ক প্রথম দু’টি ম্যাচে বেশ কিছু খারাপ সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন বলেও দাবি করেছেন শোয়েব। বলেন, আমরা তাকে শ্রদ্ধা করি। আমি ভারতের পক্ষে ডিফেন্ড করছি না, কিন্তু আমি কষ্ট পাই কারণ, গণমাধ্যম তাদের ওপর অতিরিক্ত চাপ প্রয়োগ করছে। দলের হারের পর ভারতীয় সংবাদমাধ্যম প্রথমে টিম ইন্ডিয়ার ওপর উত্তাপ ছড়িয়েছে। এরপর ক্রিকেটার ও তাদের পরিবারকেও অপমান করা হচ্ছে।

টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক হিসেবে এটাই কোহলির শেষ বিশ্বকাপ। সিদ্ধান্তটা বিশ্বকাপের আগেই জানিয়েছিলেন। টুর্নামেন্টের আগে এ নিয়ে খুব বেশি উচ্চ-বাচ্য না হলেও কোহলির অধিনায়কত্ব ছাড়ার সিদ্ধান্তকেই পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ডের কাছে হারের অন্যতম কারণ হিসেবে দেখা হচ্ছে। আজ বুধবার বাঁচা–মরার লড়াইয়ে আফগানিস্তানের মুখোমুখি হবে ভারত। আর সেদিকেই তাকিয়ে রয়েছে পুরো বিশ্ব।

ইউএইচ/


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply