বৈশ্বিক উষ্ণতার বিরুদ্ধে উদাহরণ তৈরি করলো পাকিস্তান

|

ছবি: সংগৃহীত

বৈশ্বিক উষ্ণতার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে দারুণ এক উদাহরণ তৈরি করলো পাকিস্তান। দেশটির প্রেসিডেন্ট বাসভবন এখন শতভাগ সবুজায়িত। যা বিশ্বে প্রথম।

প্যালেস এলাকায় দুই বছরে রোপন করা হয়েছে ১৫ হাজারের বেশি গাছ। শতভাগ সবুজায়নের মিলেছে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতিও। শুধু তাই নয়, রয়েছে গ্রিন এনার্জির ব্যবস্থাও। ভবনের ছাদেই বসানো আছে সোলার প্যানেল। সূর্য থেকে সরাসরি উৎপন্ন হচ্ছে বিদ্যুৎ। সেই বিদ্যুৎ ব্যবহৃত হচ্ছে গোটা ভবনে। এতে প্রতি বছর সাশ্রয় হচ্ছে ৮ কোটি রুপি।

পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভি বলেন, শতভাগ সবুজ আমাদের প্রেসিডেন্ট বাসভবন। যা বিশ্বের মধ্যে প্রথম। এখন এখান থেকে কোন ক্ষতিকর কার্বন নিঃসরণ হয় না। কারণ আমরা শুরু থেকেই গাছের প্রতি আলাদা গুরুত্ব দিয়ে আসছি। গাছ যেন না কাটতে হয় এ জন্য সোলার প্যানেল বসানোর পরিকল্পনা পর্যন্ত পরিবর্তন করেছি।

পাকিস্তানের এমন অর্জনকে অনন্য উদাহরণ বলছেন বিশেষজ্ঞরা। শুধু প্রেসিডেন্ট প্যালেস নয়, সব ক্ষেত্রেই ক্ষতিকর কার্বন নিঃসরণ মাত্রা কমানোর পরামর্শ তাদের।

অ্যাসোসিয়েশন অব এনার্জি ইঞ্জিনিয়ার্সের নির্বাহী পরিচালক বিল কেন্ট বলেন, প্রথম হিসেবে অবশ্যই এটি অনন্য এক মাইলফলক। পাকিস্তান তাদের প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী কাজ করেই সার্টিফিকেট অর্জন করেছে। এ জন্য তাদের ধন্যবাদ জানাই। আশা করছি আগামীতে আরও বড় পরিকল্পনা করবে তারা।

এডিবি ও বিশ্ব ব্যাংকের তথ্য বলছে, জলবায়ুর ক্ষতিকর ঝুঁকিতে থাকা শীর্ষ ১০ দেশের মধ্যে অন্যতম পাকিস্তান। এমন সবুজ প্যালেস হতে পারে অনেক দেশের জন্য অনুপ্রেরণা।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply