দেখে নিন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সেরা ৬ ওপেনিং জুটি

|

ছবি: সংগৃহীত

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ইন্ডিয়ার করা ১৫২ রানকে মামুলি বানিয়ে ওপেনিং জুটিতেই লক্ষ্যে পৌঁছে যায় পাকিস্তান। ৫২ বলে ৬৮ রান করে অপরাজিত থাকেন দলটির অধিনায়ক বাবর আজম। আর ৫৫ বলে ৭৯ রান করে অপরাজিত থাকেন উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ রিজওয়ান।

১৫২ রানের জুটি গড়ে এ দু’জন ভেঙ্গে দিয়েছেন ১৪ বছরের রেকর্ড। এর আগে ২০০৭ সালে ১৪৫ রানের ওপেনিং জুটি গড়েছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের ব্যাটিং দানব ক্রিস গেইল ও ডোয়াইন স্মিথ। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে প্রথম বিশ্বকাপেই এই রেকর্ড গড়েছিলেন তারা।

ওপেনিংয়ে তৃতীয় সর্বোচ্চ রানের রেকর্ডও পাকিস্তানি খেলোয়াড়দের দখলে। ২০১০ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে ১৪২ রানের রেকর্ড গড়েন কামরান আকমল ও সালমান বাট। সংক্ষিপ্ত এ ফরম্যাটের প্রথম আসরে একটি রেকর্ড জুটি করেন ভারতীয় ওপেনাররা। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে গৌতম গম্ভীর ও বীরেন্দর শেবাগ গড়েন ১৩৬ রানের জুটি। সেরা ছয় ওপেনিং জুটির আরও একটিতে ছিলেন দ্য ইউনিভার্স বস ক্রিস গেইল। টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের দ্বিতীয় আসরে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ১৩৩ রানের জুটি গড়েন গেইল ও আন্দ্রে ফ্লেচার। ১৩৩ রানের জুটি গড়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ান ওপেনাররাও। ২০১২ সালে এই ভারতের বিপক্ষেই ১১২ রানের জুটি গড়েন ডেভিড ওয়ার্নার ও শেন ওয়াটসন।

বাবর-রিজওয়ানের এই রেকর্ড জুটির দিনে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতকে ১০ উইকেটে উড়িয়ে দিয়েছে পাকিস্তান। বিরাট কোহলির ৫৭ ও রিশাভ প্যান্টের ৩৯ রানে ১৫২ পর্যন্ত তুলতে সমর্থ হয় ভারত। দুর্দান্ত বল করে ৩ টি উইকেট নেন শহীদ আফ্রিদির জামাতা শাহীন আফ্রিদি। জবাব দিতে গিয়ে ১৪ বছরের রেকর্ড ভাঙ্গা জুটিতেই লক্ষ্যে পৌঁছে যায় পাকবাহিনী।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply