৭৭ বল থাকতেই জিতলো শ্রীলঙ্কা; খালি হাতে ফিরলো ডাচরা

|

ছবি: সংগৃহীত

বিশ্বকাপ টি-টোয়েন্টির চলতি আসরে আগেই মূলপর্বে খেলা নিশ্চিত করেছিল শ্রীলঙ্কা। নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে বাছাইপর্বের শেষ ম্যাচটি ছিল শুধুই নিয়মরক্ষার। এই ম্যাচে ডাচদের হেসেখেলেই উড়িয়ে দিলো লঙ্কানরা। ৭৭ বল বাকি থাকতেই দুই উইকেট হারিয়ে লক্ষ্যে পৌঁছে যায় দাসুন শানাকার দল।

শুক্রবার (২২ অক্টোবর) টস জিতে নেদারল্যান্ডসকে প্রথমে ব্যাটিংয়ে পাঠায় শ্রীলংকা। আগে নেমে প্রথম ওভার থেকেই উইকেট হারাতে থাকে ডাচরা। মাত্র ১০ ওভারেই ৪৪ রান করে অলআউট হয় নেদারল্যান্ড। সর্বোচ্চ ১১ রান করেন কলিন ম্যাকারম্যান। ১০ রান করেন বেন কুপার। বাকি আটজনের কেইউ স্পর্শ করতে পারেনি ১০ রানের সীমা।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে কোনো রান না করেই ফেরেন লঙ্কান ওপেনার পাথুম নিশাঙ্কা। তবে উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান কুশল পেরেরার ২৪ বলে অপরাজিত ৩৩ রানে জয় নিশ্চিত করতে কোনো সমস্যা হয়নি শ্রীলঙ্কার। ফলে কোনো জয় ছাড়াই বিশ্বকাপ শেষ করলো নেদারল্যান্ডস।

৩ ওভারে ৭ রানের খরচায় ৩ উইকেট নিয়ে ম্যান অব দ্য ম্যাচ হয়েছেন লঙ্কান পেসার লাহিরু কুমারা।

আজ ৪৪ রান করে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ইতিহাসে দ্বিতীয় সর্বনিম্ন রানের লজ্জার রেকর্ড গড়লো ডাচরা। এর আগে ২০১৪ সালের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৩৯ রানে অলআউট হয় নেদারল্যান্ডস। বিশ্বকাপের ইতিহাসে সেটি সর্বনিম্ন রানের রেকর্ড।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply