যোগী আদিত্যনাথের সভায় সশস্ত্র ব্যক্তি আটক, চার পুলিশকর্মী বরখাস্ত

|

ছবি: সংগৃহীত।

ভারতের উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথকে হত্যা করার উদ্দেশ্যে রিভলবার নিয়ে এক অনুষ্ঠানে প্রবেশ করে ধরা পড়ে এক যুবক। গত মঙ্গলবারের (১৯ অক্টোবর) ওই ঘটনায় মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তায় গাফিলতির অভিযোগে বরখাস্ত করা হয় চারজন পুলিশ কর্মীকে, তদন্ত চলছে আরও তিন পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে। খবর এনডিটিভির।

ঘটনার দিন ওই রাজ্যের বাস্তি জেলার অটল বিহারী বাজপেয়ী অডিটোরিয়ামে একটি অনুষ্ঠান ছিল মুখ্যমন্ত্রীর। যোগী আসার মিনিট ৪৫ আগে সেখানে রিভলবার হাতে ঢুকে পড়ে এক যুবক। মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা এক পুলিশকর্মীই তাকে দেখতে পায়। কিন্তু ততক্ষণে মূল মঞ্চের অনেকটাই কাছে পৌঁছে গিয়েছিল ওই যুবক। সাথে সাথে তাকে ঘটনাস্থল থেকে বের করে নিয়ে যায় পুলিশ।

উত্তরপ্রদেশ পুলিশের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, পুরো ঘটনাটিই ঘটেছে মুখ্যমন্ত্রী সভায় আসার ৪০ থেকে ৪৫ মিনিট আগে। তাছাড়া, যে যুবক বন্দুকটি নিয়ে সভাস্থলে গিয়েছিল, তার কাছে রিভলবার রাখার লাইসেন্সও ছিল। প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে, ওই যুবক স্থানীয় এক সরকারি কর্মকর্তার আত্মীয়।

তবে সভায় ওই তরুণ কেনো রিভলবারটি নিয়ে ঢুকেছিল, জানতে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে, মুখ্যমন্ত্রীর সভাস্থলের মতো গুরুত্বপূর্ণ জায়গায় সশস্ত্র ওই যুবক ঢুকল কীভাবে? এই ঘটনায় মোট ৭ পুলিশকর্মীর বিরুদ্ধে গাফিলতির অভিযোগ উঠেছে। এদের মধ্যে চারজনকে ইতোমধ্যেই বরখাস্ত করা হয়েছে। বাকিদের বিরুদ্ধে তদন্ত চলছে।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply