মার্ক জাকারবার্গকে মার্কিন সিনেটে তলব

|

মার্ক জাকারবার্গ। ছবি: সংগৃহীত।

শিশুকিশোরদের ওপর ইনস্টাগ্রামের ক্ষতিকর প্রভাববিষয়ক শুনানিতে অংশ নিতে মার্ক জাকারবার্গকে মার্কিন সিনেটে তলব করেছেন সিনেটর রিচার্ড ব্লুমেনথাল। গতকাল বুধবার (২০ অক্টোবর) জাকারবার্গকে লেখা চিঠিতে ফেসবুক সিইও কিংবা ইনস্টাগ্রামপ্রধানকে উপস্থিত থাকতে বলেন তিনি।

ফেসবুকের সাবেক কর্মী ফ্রান্সেস হাউগেনের ফাঁস হওয়া গোপন নথির উদ্ধৃতি দিয়ে ব্লুমেনথাল লিখেছেন, শিশুকিশোরদের মানসিক স্বাস্থ্য ও আসক্তি নিয়ে ফেসবুক আমাদের কাছ থেকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য গোপন করেছে বলে মনে হচ্ছে। গত আগস্টে যখন আমি ইনস্টাগ্রাম ও টিনেজারদের নিয়ে সুনির্দিষ্ট তথ্য চেয়েছিলাম, ফেসবুক আমাকে বিভ্রান্তিকর তথ্য দিয়েছে, যা এখন হাউগেনের বক্তব্য সরাসরি নাকচ করে দেয়।

ফ্রান্সেস হাউগেনের ফাঁস করা নথির সূত্র ধরে মার্কিন দৈনিক দ্য ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল সেপ্টেম্বরে ধারাবাহিক প্রতিবেদন প্রকাশ করে। একটি প্রতিবেদনে বলা হয়, ইনস্টাগ্রাম কীভাবে কিশোর বয়সী লাখো ব্যবহারকারীদের মানসিক চাপে ফেলছে, তা নিয়ে গত তিন বছর গবেষণা করেন ফেসবুকের গবেষকেরা। গবেষণা প্রতিবেদনে বলা হয়, ইনস্টাগ্রাম টিনেজারদের মানসিক স্বাস্থ্যে ক্ষতিকর প্রভাব ফেলতে পারে।

ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের প্রতিবেদন ও আইনপ্রণেতাদের কাছ থেকে নতুন করে চাপ আসায় নিজেদের পরিকল্পনায় পরিবর্তন আনে ইনস্টাগ্রাম। ১৩ বছরের কম বয়সীদের জন্য একটি অ্যাপ ছাড়ার পরিকল্পনা থাকলেও তা আপাতত স্থগিত করা হয়। ব্লুমেনথালের বাণিজ্যবিষয়ক উপকমিটিতে ফেসবুকের হেড অব সেফটি অ্যান্টিগন ডেভিসের শুনানির দিন কয়েক আগে সেটি স্থগিত করা হয়।

শুনানিতে ডেভিস অভ্যন্তরীণ গবেষণা লুকানোর ব্যাপারে মিথ্যা তথ্য দিয়েছিলেন বলে জানান ব্লুমেনথাল। তিনি বলেন, ফেসবুক নথি ব্যবহারের সুযোগে বাধা দিচ্ছে কি না, সে ব্যাপারে সরাসরি প্রশ্নের জবাবে মিজ ডেভিস বলেছেন, তার জানামতে এমনটা করা হয়নি।

তিনি বলেন, যদি কোনো পরিবর্তন আসে, তবে আমার কার্যালয়ে যোগাযোগ করবেন। কিন্তু গত সপ্তাহে বেশ কয়েকটি সংবাদ প্রতিবেদনে বলা হয় ফেসবুক ইনটিগ্রিটি দলের কাছ থেকে নথি গোপন করেছে ফেসবুক। প্রতিষ্ঠানটি স্বচ্ছতার পথ বেছে না নিয়ে সমালোচনা ঠেকাতে এমনটা করেছে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply