কর্ণফুলীর তীরে গড়ে উঠছে ১২শ মিটার দীর্ঘ কন্টেইনার টার্মিনাল

|

চট্টগ্রাম বন্দরের সক্ষমতা বাড়াতে নির্মিত হচ্ছে আরেকটি টার্মিনাল। ড্রাইডক থেকে বোট ক্লাব পর্যন্ত কর্ণফুলী নদীর তীর ঘেঁষে চলছে ১২শ মিটার দীর্ঘ পতেঙ্গা কন্টেইনার টার্মিনাল নির্মাণের বিশাল কর্মযজ্ঞ। আগামী জানুয়ারিতে চালুর লক্ষ্যে দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলছে কাজ। নির্মিতব্য পতেঙ্গা কন্টেইনার টার্মিনাল, পিসিটির ৪টি জেটিতে বছরে অন্তত ৪ লাখ কন্টেইনার হ্যান্ডলিং হবে বলে দাবি করছে কর্তৃপক্ষ।

একটি ডলফিন জেটি ও কন্টেইনার জাহাজ ভেড়ানোর জন্য আরও ৩টি জেটি নির্মাণের কাজ প্রায় শেষের দিকে। আগামী জানুয়ারির মধ্যে এই চারটি জেটি চালুর লক্ষ্য বন্দর কর্তৃপক্ষের। চট্টগ্রাম বন্দর সচিব ওমর ফারুক বলছেন, এতে বছরে সাড়ে ৪ লাখ একক কন্টেইনার হ্যান্ডলিং সম্ভব হবে।

পতেঙ্গা কন্টেইনার টার্মিনাল এলাকায় নদীর গভীরতা বেশি থাকায় ভিড়তে পারবে সাড়ে ৯ মিটার ড্রাফটের জাহাজ। বিজিএমইএ সভাপতি ফারুক হাসান বলছেন, এর ফলে আমদানি রফতানি বাণিজ্যে গতিশীলতা বাড়বে।

জেটির পাশে ১৬ একর জায়গায় নির্মিত হচ্ছে কন্টেইনার ইয়ার্ড। জাহাজ থেকে নামানোর পর মালবাহী ট্রেনে করে কন্টেইনার আনা হবে এই ইয়ার্ডে। ফলে মূল টার্মিনালে জট তৈরি হবে না বলে আশা করছেন চট্টগ্রাম চেম্বার অব কমার্স সাবেক পরিচালক মাহফুজুল হক শাহ।

সর্বশেষ ২০০৭ সালে নির্মাণ করা এনসিটিসহ চট্টগ্রাম বন্দরের জেটির সংখ্যা মোট এখন ১৮টি।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply