ফ্রান্সের তারকা ডিফেন্ডারের ৬ মাসের জেল

|

ছবি: সংগৃহীত

আইন অমান্য করায় ফ্রান্স এবং বায়ার্ন মিউনিখের তারকা ডিফেন্ডার লুকাস হার্নান্দেজকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। ২০১৭ সালে দেয়া আদালতের আদেশ অমান্য করাতেই স্প্যানিশ আদালত লুকাসকে এই শাস্তি দিলো।

২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারিতে এটলেটিকো মাদ্রিদের খেলোয়াড় থাকাকালীন বান্ধবী আমেলিয়া ইয়োরেন্তের সাথে বিবাদ ও হাতাহাতিতে জড়ান লুকাস। হার্নান্দেজের আঘাতে আহত হয়ে হাসপাতালেও ভর্তি হতে হয়েছিল আমেলিয়াকে। এর শাস্তিস্বরূপ লুকাসকে ৩১ দিনের জনসেবামূলক কাজের সাজা দেয়া হয় এবং আমেলিয়ার ৫০০ মিটারের মধ্যে না যাওয়ার আদেশও দিয়েছিলেন আদালত।

কিন্তু আদালতের আদেশ অমান্য করে সে সময়ই আমেলিয়াকে বিয়ে করেন লুকাস। এজন্য সে বছর গ্রেফতার করা হয় এই ফরাসি ডিফেন্ডারকে, দেয়া হয় ছয় মাসের স্থগিত কারাদণ্ড। তখনও আপিল করে হেরে যান লুকাস।

১০ দিনের মধ্যে জেল পছন্দ করার সুযোগ দেয়া হয়েছে ২০১৮ সালে ফ্রান্সের বিশ্বকাপজয়ী দলের সদস্য লুকাস হার্নান্দেজকে। ২৫ বছর বয়সী এই ফুটবলারকে আগামী ১৯ অক্টোবর (মঙ্গলবার) অবশ্যই মাদ্রিদের আদালতে হাজির হতে হবে। কারণ, এই শাস্তির বিরুদ্ধে আপিল করেছেন লুকাস হার্নান্দেজ।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply