নায়িকারা ছোট পোশাক পরা শুরু করায় আমার অভিনয় জীবন শেষ: রঞ্জিত

|

রঞ্জিত বেদী।

যে দিন থেকে নায়িকারা ছোট পোশাক পরা শুরু করলেন, সেদিন থেকে আমার আর প্রয়োজন পড়লো না বলে মন্তব্য করেছেন বলিউডের আশির দশকের ‘রেপ স্পেশালিস্ট’ খ্যাত রঞ্জিত বেদী। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

খবরে বলা হয়, পর্দায় ধর্ষক হিসেবে প্রতিষ্ঠিত রঞ্জিত। ইংরেজি পরিভাষায় তার নামই হয়ে গিয়েছিল ‘রেপ স্পেশালিস্ট’। ছবিতে কোনো ধর্ষণ অথবা যৌন হেনস্থার দৃশ্য থাকলে নায়িকারা নাকি তাকে যোগাযোগ করার কথা বলতেন। প্রায় ২০০টির বেশি হিন্দি ছবিতে তিনি খলনায়কের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। শুধুমাত্র ‘রঞ্জিত’ হিসেবেই তিনি বেশি জনপ্রিয়। সম্প্রতি ‘কপিল শর্মা শো’তে এসে নিজের অভিনয় জীবন এবং ১৯৭০-৮০ দশকের চলচ্চিত্র জগতের ছবিটি তুলে ধরলেন তিনি।

‘শরমিলি’ ছবিতে রাখি গুলজারের সঙ্গে তার দৃশ্য দেখে বাবা-মা তাকে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছিলেন বলে জানিয়েছেন তিনি। রঞ্জিত বলেন, ‘রাখির চুল ধরে টানছি, শাড়ি টেনে ছিঁড়ে দিচ্ছি। এসব দেখে মা-বাবা বলেছিল, আমি বাবার নাম খারাপ করছি। এমনকি অমৃতসরে আমাদের দেশের বাড়ির প্রতিবেশীদের সমালোচনায় আগেভাগেই ভয় পেয়ে গিয়েছিলেন তারা।’

রঞ্জিত বলেন, ‘আমি সব সময়ে আমার সহ-অভিনেত্রীদের অস্বস্তি দূর করার চেষ্টা করতাম। আর তাই আমার নামই হয়ে গেলো ‘রেপ স্পেশালিস্ট’। সেই সময়ে এইসব দৃশ্যকে অশ্লীল তকমা দেয়া হতো না। নায়ক-নায়িকা, খলনায়ক, মা-বাবা, বোন- সব চিত্রের গতানুগতিক ধারা ছিল।’

আনন্দবাজার পত্রিকা জানিয়েছে, সাক্ষাৎকারেই রঞ্জিত মশকরা করে বলেছেন, ‘আমি তাই বলি, যে দিন থেকে নায়িকারা ছোট পোশাক পরা শুরু করলেন, আমার আর প্রয়োজন পড়লো না। ছোট পোশাক টেনে খুলে ফেলার তো দরকার পড়তো না আর।’

ইউএইচ/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply