আবেগী হয়েই প্রার্থীরা সহিংসতা ঘটিয়েছে: ইসি সচিব

|

নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার

সদ্য সমাপ্ত ১৬০ ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে সহিংসতার পেছনে প্রার্থীদের অতি আবেগকেই দায়ী করেছেন নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার।

আজ সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) ১৬০ ইউপি ও ৯টি পৌরসভার ভোটগ্রহণ শেষে নির্বাচন ভবনের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মলনে তিনি এমন মন্তব্য করেন।

নির্বাচনী সহিংসতায় রোববার (১৯ সেপ্টেম্বর) রাতে এক বৃদ্ধা ও আজ দুজন নিহত হন। ১১টি ইউপি ও ৯টি পৌরসভায় ভোটগ্রহণ করা হয় ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম)। ভোটের সার্বিক অবস্থা নিয়ে গণমাধ্যমের সামনে এসেই ইসি সচিব এমন মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, নির্বাচনী সহিংসতায় হতাহতের ঘটনা বেদনাদায়ক ও দু:খজনক। বাকি ইউপি নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে। প্রার্থীরা ইমোশনাল হয়ে যায় বলেই সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে। ৫ টি কেন্দ্রে অনিয়ম হওয়ায় ভোট বন্ধ করা হয়েছে। ইভিএম এ ৫০ এবং ব্যালটে ৬৫ শতাংশ ভোট গননা হয়েছে। যোগ্য প্রার্থী থাকলে বাকি প্রার্থীরা নির্বাচনে অংশ না নিলেই কেবল বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় নির্বাচিত হচ্ছে। কোনও রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে কোনও প্রার্থী অভিযোগ করেননি।

ভোট বর্জনের বিষয়ে ইসি সচিব বলেন, কেউ কারচুপির কোনও অভিযোগ রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে করে থাকলে, তাহলে তিনি ব্যবস্থা নেবে। তবে সেটা সেই সময়ই করতে হবে। আমরা যে তথ্য পেয়েছি তাতে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply