কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে আরও এক পর্যটকের মরদেহ উদ্ধার

|

সমূদ্র সৈকতে ডুবে মৃত পর্যটকের লাশ মর্গে নেয়া হচ্ছে।


কক্সবাজার প্রতিনিধি:

 
কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে ভেসে এসেছে আরও এক পর্যটকের মরদেহ। আজ শনিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) দুপুরে সৈকতের নাজিরারটেক পয়েন্ট থেকে মেহের ফারাবী অভ্র (২৭) নামে ওই পর্যটকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত ফারাবী যশোর কোতোয়ালী এলাকার শাহরিয়ার ফারাবীর ছেলে।

এর আগে, গতকাল শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে সৈকতের সীগাল পয়েন্টে গোসল করতে নেমে ভেসে যান দুই পর্যটক। এ সময় লাইফগার্ড কর্মীরা ঐশিক নামে একজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ঐশিক যশোরের কোতোয়ালি থানা এলাকার আসাদুজ্জামানের ছেলে। তারা ৫ বন্ধু যশোর থেকে কক্সবাজার ভ্রমণে এসে সাগরে গোসল করতে নেমে দুইজনের মর্মান্তিক মৃত্যু ঘটেছে।  

বিচের উদ্ধারকর্মী মাহবুব আলম জানান, ভেসে আসা লাশটির খবর পেয়ে দ্রুত সেখানে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে অ্যাম্বুলেন্সে করে সদর হাসপাতালে মর্গে প্রেরণ করি আমরা।

এ নিয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় এখন পর্যন্ত তিনজনের মরদেহ ভেসে এসেছে কক্সবাজার সমূদ্র সৈকতে। মৃতদের দুজন পর্যটক ও একজন স্থানীয়। গতকাল শুক্রবার দুপুরে ইমন নামে স্থানীয় এক কিশোরের মরদেহ উদ্ধার করা হয় সৈকতের সীগাল পয়েন্ট থেকে। শহরের কলাতলীর চন্দ্রিমা এলাকার আবুল কালামের ছেলে। 


এদিকে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সাগরে নামার দশ সতকর্তা নিয়ে দশ দিনের সচেতনতামূলক ক্যাম্পেইন শুরু হয়েছে। এতে বিকাল ৫টার পর সাগরে না নামা লাল পতাকা চিহ্নিত স্থানে সাগরে না নামাসহ দশ ধরনের সতর্কতামূলক বার্তা থাকলেও সন্ধ্যার পরও অনেক পর্যটককে সাগরে গোসল করতে দেখা গেছে। 


এছাড়া দূর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে গতকাল শুক্রবার থেকে কক্সবাজারে সাগর উত্থাল রয়েছে। সাথে রয়েছে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি ও মেঘলা আকাশ। এছাড়াও কক্সবাজারসহ দেশের সকল নদীবন্দরের জন্য এক নম্বর সতর্ক সংকেত জারী রয়েছে। 

/এসএইচ





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply