অজানা জ্বরে শিশু মৃত্যু বেড়েই চলেছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গে

|

ছবি: সংগৃহীত।

ভারতের পশ্চিমবঙ্গে শিশু ও কমবয়সীদের সাধারণ জ্বর বা খিঁচুনি দিয়ে জ্বর হচ্ছে। প্যারাসিটামলেও জ্বর নামছে না। পেট ব্যথা বা পেট খারাপও হচ্ছে। করোনার কিছু উপসর্গের সাথে এই জ্বরের উপসর্গ মিলে গেলেও, আক্রান্ত শিশুরা করোনা নেগেটিভ।

ডেঙ্গুও হয়নি তাদের। তাদের অন্য বেশ কিছু পরীক্ষা করা হচ্ছে। ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের উত্তরবঙ্গে এই জ্বরে আক্রান্ত হয়ে চার শিশু মারা গেছে। একজন কুচবিহারের ও তিনজন জলপাইগুড়ির। 

আজ বুধবার (১৫ সেপ্টেম্বর) জলপাইগুড়িতে একটি তিন মাসের শিশু মারা গেছে। উত্তরবঙ্গের চার জেলা জলপাইগুড়ি, কোচবিহার, দার্জিলিং ও আলিপুরদুয়ারে ৫৩৩ শিশু সরকারি হাসপাতালে ভর্তি। এ ছাড়া হাসপাতালের আউটডোরে প্রতিদিন এই জ্বরে আক্রান্ত হয়ে শয়ে শয়ে শিশু আসছে।

কলকাতা মেডিক্যাল কলেজেও বেশ কিছু শিশু জ্বর নিয়ে ভর্তি হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবারও সাতজন ভর্তি হয়েছে। এ ছাড়া নীলরতন সরকার ও আরজিকর হাসপাতালেও কিছু শিশু জ্বর নিয়ে ভর্তি হয়েছে। কলকাতার আশপাশের জেলাগুলোতেও এই জ্বরে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা।


পশ্চিমবঙ্গের শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ দিলীপ সেনগুপ্ত জানিয়েছেন, ‘ভাইরাস থেকেই এই জ্বর হচ্ছে। তবে কোন ভাইরাস তা এখনো জানা যায়নি। প্রচুর বাচ্চা এতে আক্রান্ত হচ্ছে। উত্তরবঙ্গে শুরু হয়ে তা কলকাতাসহ দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলোতে এসেছে। তবে দুই জায়গাতে ভাইরাস একই কি না, তা বলতে পারছি না।’ দিলীপ সেনগুপ্তের মতে, ‘এই জ্বর থেকে মাল্টি অর্গান ফেইলিওর হচ্ছে। সে জন্যই এটা মারাত্মক।’





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply