টাকার বিনিময়ে ২ হাজার মানুষকে টিকা দেয়ার অভিযোগ

|

চট্টগ্রামের পটিয়ায় রেজিস্ট্রেশন ছাড়াই অস্থায়ী কেন্দ্র খুলে টাকার বিনিময়ে ২ হাজার মানুষকে টিকাদানের ঘটনায় তোলপাড় চলছে। অভিযুক্ত মেডিকেল টেকনোলোজিস্ট রবিউল ইসলামের দাবি, এলাকাবাসীর অনুরোধে সেবার ব্রত নিয়ে টিকা দিয়েছেন তিনি।

রীতিমতো ব্যানার টাঙিয়ে, লোকজন মানুষ জড়ো করে পটিয়ার শোভনদন্দী ইউনিয়নের একটি স্কুলে টিকা দেয়ার আয়োজন করা হলেও জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের কোনো স্বাস্থ্যকর্মকর্তার কানে এই তথ্য পৌঁছায়নি।

জানা গেছে, একক সিদ্ধান্তে অস্থায়ী কেন্দ্র খুলে টাকার বিনিময়ে অন্তত ২ হাজার মানুষকে টিকা দিয়েছেন পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল টেকনোলোজিস্ট রবিউল ইসলাম। তবে রবিউলের ব্যাখ্যা ভিন্ন। তিনি দাবি করেন, মানুষ রেজিস্ট্রেশন করেও টিকা পাচ্ছে না, দেরি হচ্ছে। তাই এলাকার মানুষের অনুরোধে স্থানীয় মেম্বারসহ সবার পরামর্শে ২ হাজার মানুষকে টিকা দিয়েছেন তিনি। টাকা নেয়ার অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, কেউ যদি বলে টাকা নিয়েছি, তদন্ত করে দেখতে পারেন।

ঘটনা তদন্তে ৩ সদস্যের কমিটি গঠন করেছে চট্টগ্রাম বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদফতর। প্রতিবেদন পেলে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বী।

মূলত, আগামী ৭ আগস্ট থেকে ইউনিয়ন পর্যায়ে রেজিস্ট্রেশনবিহীন টিকা কার্যক্রমের যে সিদ্ধান্ত, তার অংশ হিসেবে পটিয়ায় নেয়া হয়েছিল ফাইজারের এসব টিকা। যার তত্ত্বাবধানে ছিলেন রবিউল।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply