টোকিও অলিম্পিকে ডোপ কেলেঙ্কারি

|

ডোপ টেস্ট উৎরাতে পারেননি নাইজেরিয়ান অ্যাথলেট ব্লেসিং ওকাগবারে। ছবি: রয়টার্স

ডোপ টেস্টে পাস না করায় টোকিও অলিম্পিক থেকে ছিটকে গেলেন নাইজেরিয়ান অ্যাথলেট ব্লেসিং ওকাগবারে।

শুক্রবার (৩১ জুলাই) ১০০ মিটার স্প্রিন্টে অবশ্য দারুণ টাইমিংয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করেছিলেন তিনি। তবে শরীরে নিষিদ্ধ হরমোনের অস্তিত্ব পাওয়ায় আসর শেষ হয়ে গেল ৩২ বছর বয়সী এই অ্যাথলেটের।

১৯৮৮ সালে সিউল অলিম্পিকে স্বর্ণ জেতার ১২ ঘণ্টা পরে অ্যানাবলিক স্টেরয়েড পাওয়া গেল বেন জনসন এর ডোপ টেস্টে। সর্বশেষে সোচি অলিম্পিকে রাশিয়ার ডোপ কেলেঙ্কারির কথা সবারই জানা। করোনার মাঝে শুরু হওয়া টোকিও অলিম্পিকও পারলো না ব্যতিক্রম হতে।

শুক্রবার অলিম্পিকের ১০০ মিটার স্প্রিন্টে ১১.০৫ সেকেন্ড সময় নিয়ে হিট পেরিয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করেছিলেন নাইজেরিয়ার অ্যাথলেট ব্লেসিং ওকাগবারে। কিন্তু ডোপ টেস্টে পজেটিভ হওয়ায় থামতে হচ্ছে ২০০৮ সালে বেইজিং অলিম্পিকে লং জাম্পে রূপা জয়ী এই অ্যাথলেটকে।

অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞার বিষয়টি জানানো হয় কমনওয়েলথ গেমসে ১০০ মিটারে স্বর্ণজয়ী ওকাগবারেকে। ফলে মেয়েদের ২০০ মিটার স্প্রিন্ট ও ১০০ মিটার রিলেতেও অংশ নেয়া হচ্ছে না তার।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply