অভিযান চলাকালে বাজে আচরণের শিকার হয়েছি: হেলেনা জাহাঙ্গীরের মেয়ে

|

হেলেনা জাহাঙ্গীরের মেয়ে জেসি আলম।

হেলেনা জাহাঙ্গীরের বাসায় র‍্যাবের অভিযান চলাকালে তাদের সাথে বাজে আচরণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেন হেলেনা জাহাঙ্গীরের মেয়ে জেসি আলম। জেসি আলম বলেন, র‍্যাবের এক কর্মকর্তা তাদের সাথে বাজে আচরণ করেছে।

আজ বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) রাত সাড়ে ৮ টা থেকে মাঝরাত পর্যন্ত চার ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে হেলেনার বাসায় অভিযান চালানো হয়। এসময় তার বাসা থেকে বেশকিছু ছুরি, ক্যাসিনোতে ব্যবহার হওয়া সরঞ্জাম, বিদেশি মদ, বিদেশি মুদ্রা, হরিণের চামড়া, ওয়াকিটকি ইত্যাদি জব্দ করেছে র‍্যাব।

অভিযান শেষে যমুনা নিউজকে সাক্ষাৎকার দেন হেলেনা জাহাঙ্গীরের মেয়ে জেসি আলম।

যমুনা নিউজকে জেসি আলম জানান, কয়েক মাস আগে আমার মায়ের অপারেশন হয়েছে। ঘুমানোর জন্য তাকে নিয়মিত ঔষধ নিতে হয়। এমন অবস্থায় যদি এসব কাহিনী করা হয় তাহলে একজন মানুষের মন-মানসিকতা ঠিক থাকবে না।

ভিডিও প্রতিবেদনটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন

তিনি আরও জানান, র‍্যাবের অভিযান পরিচালনার জন্য কোনো ওয়ারেন্ট ছিল না। তারা আমাদের সাথে সহযোগিতা করতে পারতো। তা না করে তারা উল্টো আমাদেরকে দমিয়ে রেখেছে।

এছাড়াও, অভিযান চলাকালে র‍্যাবের এক কর্মকর্তা তাদের সাথে বাজে আচরণ করেছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি। তবে সেই র‍্যাব কর্মকর্তার পরিচয় সম্পর্কে কিছু বলতে পারেননি।

মাঝরাতে অভিযান শেষে এখন হেলেনা জাহাঙ্গীরকে র‍্যাবের জিম্মায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তাকে আটকের পর র‍্যাবের তরফ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে তেমন কিছুই জানানো হয়নি। পরবর্তীতে এ বিষয়ে ব্রিফ করা হবে বলে জানান উপস্থিত কর্মকর্তারা।

সম্প্রতি দলের গঠনতন্ত্র উপেক্ষা করে ‘বাংলাদেশ আওয়ামী চাকরিজীবী লীগ’ গঠনের ঘোষণাসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারিত নানা বিতর্কিত কর্মকাণ্ডের জেরে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক উপকমিটির সদস্য পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়। তার বিতর্কিত কর্মকাণ্ডে বিব্রত হন আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতারাও। পরবর্তীতে এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লাইভে এসে কান্নাকাটি করতে দেখা যায় তাকে। আওয়ামী লীগের নেতাদের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন তুলেন তিনি।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply