বাকির টাকা চাওয়ায় স্কুল ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ

|

মাগুরা প্রতিনিধি:

মাগুরায় দোকানের বকেয়া টাকা পরিশোধ করা নিয়ে বিরোধের জের ধরে কাজী গোলাম রসুল নামের এক স্কুল ছাত্রকে খুনের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার (২৮ জুলাই) সদর উপজেলার বেরইল পলিতা গ্রামে ঘটনাটি ঘটেছে। গোলাম রসুল বেরইল একই গ্রামের কাজী রওনক হোসেনের ছেলে। সে পাশের গ্রাম গঙ্গারামপুর কালি প্রশন্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্র ছিল।

নিহতের বাবা চা দোকানদার কাজী রওনকের অভিযোগ, রাত সাড়ে ৮টার সময় তার দোকান থেকে ছেলে গোলাম রসুল বাড়ি ফেরার পথে একই গ্রামের শহীদ মিয়ার ছেলে সজীব হোসেন, তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে। পরে তাকে উদ্ধার করে মাগুরা ২৫০ শয্যা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

তিনি আরও জানান, বাকি খাওয়ার সূত্র ধরে তার চায়ের দোকানে সজীবের কাছে বেশ কিছু টাকা পাওনা ছিলো। এই টাকা চাওয়া নিয়ে তার ছেলে গোলাম রসুলের সাথে সজীবের বিরোধ সৃষ্টি হয়। যার জের ধরে সজীব পূর্ব পরিকল্পিতভাবে গোলাম রসুলকে কুপিয়ে হত্যা করেছে।

মাগুরা ২৫০ শয্যা হাসপাতালের জরুরী বিভাগের চিকিৎসক এনামুল কবীর জানান, রাত সাড়ে ৯ টার দিকে গোলাম রসুলকে হাসপাতালে আনা হয়। বুকে ধারালো অস্ত্রের কোপে হাসপাতালে আনার আগেই তার মৃত্যু ঘটেছে।

হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে মাগুরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জয়নাল আবেদীন জানান, গোলাম রসুলের হত্যাকারী হিসেবে প্রাথমিকভাবে সজীবের নাম এসেছে। তবে হত্যার কারণ এখনো নিশ্চিত করা যায়নি।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply