বিটকয়েন স্বীকৃত না হলেও অবৈধ নয়: বাংলাদেশ ব্যাংক

|

ক্রিপ্টোকারেন্সি বিট কয়েনের মালিকানা, সংরক্ষণ বা লেনদেন স্বীকৃত না হলেও অপরাধ নয় মর্মে সিআইডিকে একটি চিঠিতে জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। সংগৃহীত ছবি।

সম্প্রতি পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) একটি মামলার তদন্ত প্রসঙ্গে বিটকয়েনের ব্যাপারে বাংলাদেশ ব্যাংকের মতামত জানতে চায়। ক্রিপ্টোকারেন্সি বিট কয়েনের মালিকানা, সংরক্ষণ বা লেনদেন স্বীকৃত না হলেও অপরাধ নয় মর্মে সিআইডিকে একটি চিঠিতে জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রানীতি বিভাগ এ মতামত দেয়।

বাংলাদেশসহ বিশ্বের কোনো আইনগত কর্তৃপক্ষ এখনও পর্যন্ত ক্রিপ্টোকারেন্সিকে স্বীকৃতি দেয়নি। তবে জাপান, সিঙ্গাপুর, আরব আমিরাত ও যুক্তরাষ্ট্রসহ কয়েকটি দেশে এই মুদ্রাকে বৈধতাদানের উদ্যোগ চলছে। গত ১৮ মে সিআইডিকে পাঠানো ওই চিঠিতে জানানো হয়, ক্রিপ্টোকারেন্সির মালিকানা, সংরক্ষণ বা লেনদেন স্বীকৃত না হলেও এটিকে অপরাধ বলার সুযোগ নেই।

বিটকয়েন এক ধরনের ভার্চুয়াল মুদ্রা। এখন বিশ্বে লেনদেনযোগ্য ক্রিপ্টোকারেন্সির সংখ্যা মোটামুটি আট হাজারের মতো। এগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয় বিটকয়েন। বাংলাদেশ ব্যাংক ২০১৭ বিটকয়েন জাতীয় কৃত্রিম মুদ্রায় লেনদেন থেকে বিরত থাকার বিষয়ে সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তিও প্রকাশ করেছিল। তবে ক্রিপ্টোকারেন্সির ব্যাপারে বাংলাদেশ ব্যাংক এখনও কোনো সুনির্দিষ্ট নীতিমালা দেয়নি।

তবে এক আনুষ্ঠানিক বক্তব্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক সিরাজুল ইসলাম জানিয়েছেন, শীঘ্রই বিটকয়েন অনুমোদন দেওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই। বাংলাদেশ ব্যাংক বিটকয়েনের ভালো-মন্দ খতিয়ে দেখছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply