ইসরাইলের অবৈধ বসতি স্থাপন প্রতিরোধ করতে গিয়ে আহত ১৪০ ফিলিস্তিনি

|

পশ্চিম তীরের নাবলুসে অবৈধ বসতি স্থাপনের প্রতিবাদ করতে গিয়ে আহত ১৪০। ছবি: সংগৃহীত

ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরের নাবলুসে ইসরায়েলি বাহিনীর সাথে সংঘর্ষে আহত হয়েছেন ১৪০ ফিলিস্তিনি নাগরিক। ইহুদিদের অবৈধ বসতি স্থাপন প্রতিরোধ করতে গিয়ে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

আরব নিউজের সূত্রে জানা গেছে, ইসরায়েলের অবৈধ চেকপোস্ট স্থাপনের প্রতিবাদ জানাতে গতকাল শুক্রবার (২৩ জুলাই) পশ্চিম তীরের বেইতা নামক স্থানে জড়ো হয় হাজারো ফিলিস্তিনি। অবৈধ বসতি সম্প্রসারণের প্রতিবাদে এ জায়গায় গত কয়েক সপ্তাহ ধরে নিয়মিত বিক্ষোভ করে যাচ্ছেন ফিলিস্তিনিরা। উল্লেখ্য যে, ১৯৬৭ সালের যুদ্ধের পর থেকে পশ্চিম তীর দখলে রেখেছে ইসরাইল। ওই এলাকায় বর্তমানে ৪ লাখ ৭৫ হাজার ইহুদি অবৈধভাবে বসবাস করছে।

ইসরাইলি সেনাবাহিনীর এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, নাবলুসের দক্ষিণে জিভাত এভিয়েতার চেকপোস্টের কাছে একটি দাঙ্গা কয়েক ঘন্টা স্থায়ী হয়েছে। শত শত ফিলিস্তিনি ইসরায়েলি সেনা সদস্যদের লক্ষ্য করে পাথর নিক্ষেপ করলে তা প্রতিহত করা হয় বলে দাবি ইসরাইলের।

উল্লেখ্য যে, পশ্চিম তীরের প্রায় দেড় লক্ষাধিক ফিলিস্তিনিকে দেশটির মূল ভূখণ্ড থেকে বিচ্ছিন্ন রাখতে এখানে ৭০০ মিটারের বেশি দীর্ঘ প্রাচীর নির্মাণ করেছে ইসরাইল। ২০০২ সালে নির্মাণ শুরু হওয়া এই প্রাচীরটিই ফিলিস্তিনি ভূমিতে ইসরাইলের দখলদারিত্বের সবচেয়ে বড় প্রতীক।

ইসরায়েল নির্মিত আলোচিত এই প্রাচীরের ৮৫ ভাগ অংশই জাতিসংঘের নির্ধারিত গ্রিনলাইন লঙ্ঘন করে পশ্চিম তীরের ভেতরে নির্মিত হয়েছে। এ ছাড়া ফিলিস্তিনিদের চলাচল বিঘ্নিত করতে পশ্চিম তীর জুড়ে ১৪০ টি চেকপয়েন্টসহ মোট ৭০০ টি ব্যারিকেড দিয়েছে ইসরায়েল। এজন্য ইসরাইলি ওয়ার্ক পারমিটধারী ৭০ হাজার ফিলিস্তিনিকে প্রতিদিন এসব চেকপয়েন্ট ও ব্যারিকেড পেরিয়ে কর্মস্থলে যেতে হয়।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply