পটুয়াখালীতে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২

|

ছবি: সংগৃহীত

পটুয়াখালী প্রতিনিধি:

পটুয়াখালী-কুয়াকাটা মহাসড়কের শরীফবাড়ি এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় চালকসহ দুইজন মারা গেছে। তাদের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য পটুয়াখালী মেডিকেল হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) বিকাল পৌনে চারটার দিকে মহাসড়কের শরীফবাড়ি বাসষ্টান্ডের কালভার্ট নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। মৃতরা হলেন মো. ইমরুল কবির (২২) ও মাইক্রোবাস চালক মাহবুব হোসেন (২৯)। এ ঘটনায় ইমরুলের মা লাইজু বেগম আহত হয়েছেন। বর্তমানে তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

ইমরুলের মামা মো. সাহেদ জানান, পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে ইমরুল তার বাবা-মায়ের সাথে দাদাবাড়ি বরিশাল থেকে পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার পূর্ব লোন্দা এলাকায় নানাবাড়িতে বেড়াতে আসে। বৃহস্পতিবার নানাবাড়িতে দুপুরের খাবার খেয়ে মাকে নিয়ে মাইক্রোবাস যোগে বরিশালের উদ্দেশে রওনা হয়েছিল ইমরুল। পরে দুর্ঘটনাস্থল থেকে ফোনে তাকে দুর্ঘটনার খবর জানানো হলে তিনি দ্রুত পটুয়াখালী হাসপাতালে এসে ভাগ্নের মৃতদেহ শনাক্ত করেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আনুমানিক পৌনে চারটার দিকে মাইক্রোবাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশের খাদে পড়ে যায়। এ দৃশ্য দেখে স্থানীয় লোকজন বাস থেকে চালকসহ যাত্রীদের উঠিয়ে পটুয়াখালী হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করেন।

পথচারী নিপা আক্তার ও ইমন হোসেন জানান, চালকের পাশের সিটে ইমরুল সিটবেল্ট পরা অবস্থায় ছিল। আর গাড়ির মাঝখানে বসার কারণে লাইজু বেগম সিট বেল্ট পরেননি। যে কারণে গাড়িটি পানিতে পড়ার সাথে সাথে লাইজু জানালার গ্লাস ভেঙ্গে দ্রুত বাইরে বের হতে পারলেও গাড়ির চালক ও ইমরুল অনেক চেষ্টা করেও সিটবেল্ট খুলতে না পারায় তাদের মৃত্যু হয়েছে।

পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের দায়িত্বরত চিকিৎসক ডা. শিরিন বকুল নিপা জানান, হাসপাতালে নিয়ে আসার অনেক আগেই চালক মাহবুব ও ইমরুলের মৃত্যু হয়েছে। আহত লাইজু বেগমের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply