চীনের যে ভবন থেকে পাখির চোখে দেখা যাবে শহর

|

পর্যটকদের কাছে জনপ্রিয়তা বাড়ছে আকাশচুম্বী সাংহাই টাওয়ারের। সংগৃহীত ছবি।

চীনে পর্যটকদের কাছে জনপ্রিয়তা বাড়ছে আকাশচুম্বী ভবন সাংহাই টাওয়ারের। যেখানে মিলবে পাখির চোখে শহর দেখার অনন্য অভিজ্ঞতা। দেশটির সর্বোচ্চ ভবনে সম্প্রতি আবাসিক হোটেল চালুর পর তা আলোড়ন তুলেছে গোটা দেশে। আছে রেস্টুরেন্টও। আধুনিক স্থাপত্যকলায় নির্মিত টাওয়ারের প্রতিটি রেস্তোরাঁই সাজানো হয়েছে অনন্য বৈশিষ্ট্যে।

সবকিছু ছাড়িয়ে যেন আকাশে উঁকি মারছে চীনের সাংহাই টাওয়ার। দেশটির সর্বোচ্চ এই টাওয়ারে উঠে দেখা যাবে মেঘ বৃষ্টির লুকোচুরি খেলা। একনজরে পুরো শহরটাই যেন ধরা দেবে ভবনের চূড়ায় উঠলে। মান্দারিন হুয়াংপু নদী, শহরের ব্যস্ততা, ওরিয়েন্টাল পার্ল টাওয়ার, পুক্সি ও পুডং জেলাও মনে হবে খুব কাছে।

৬৩২ মিটার লম্বা ভবনে আছে থাকার ব্যবস্থাও। ঠিক মাসখানেক আগেই চালু হয় আবাসিক জে হোটেল। ৮৬ থেকে ৯৮ তলার মধ্যে আছে হোটেলের ১৬৫টি রুম। ১০১ তলায় হোটেল লবি। তার ওপরে আছে সাতটি রেস্টুরেন্ট। কেবল উচ্চতাই নয়। অবকাঠামো আর অন্দর সজ্জায়ও অনন্য জো হোটেল।

অবকাঠামোয় প্রচুর পরিমাণে ব্যবহৃত হয়েছে মেটাল, গ্লাস, মোজাইক, লেমিনেটেড উড, মার্বেল আর স্বচ্ছ পাথর। খাবারেও আছে ব্যতিক্রমী স্বাদ নেয়ার সুযোগ। আধুনিক ইউরোপীয়, জাপানি, চীনা নানা ধরনের খাবার পাওয়া যাবে তালিকায়।

দুবাইয়ে বিশ্বের সর্বোচ্চ ভবন ৮২৮ মিটার বিশিষ্ট বুর্জ খলিফার তুলনায় ১৯৬ মিটার কম উঁচু সাংহাই টাওয়ার।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply