মার্কিন দূতাবাসে বিস্ফোরণ

|

বলকান অঞ্চলের দেশ মন্টিনেগ্রো’র রাজধানীতে অবস্থিত মার্কিন দূতাবাসে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এতে দূতাবাসে হতাহতের কোনো খবর পাওয়া যায়নি। তবে বিস্ফোরক নিক্ষেপকারী আত্মহত্যা করেন।

বৃহস্পতিবার এ ঘটনা ঘটেছে বলে এক টুইট বার্তায় জানিয়েছে মন্টিনেগ্রো সরকার।

এতে বলা হয়েছে, “এক অজ্ঞাত পরিচয়ধারী ব্যক্তি বিস্ফোরণ ঘটাতে সক্ষম একটি বস্তু দূতাবাসের চৌহদ্দিতে নিক্ষেপ করেছিল।” নিক্ষিপ্ত বস্তুটি ‘হ্যান্ড গ্রেনেড’ ধরনের বিস্ফোরণ বলে ধারণা করা হচ্ছে বলে টুইটে জানানো হয়েছে।

আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, বিস্ফোরণের ঘটনা বুধবার মধ্যে রাতে ঘটেছে। এর পর পরই মার্কিন নাগরিকদের মন্টিনেগ্রো’র মার্কিন দূতাবাস এড়িয়ে চলাতে সতর্কতা জারি করা হয়।

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের একজন জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, হামলার লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য এখনও অজানা। পুলিশ ঘটনাটি তদন্ত করে দেখছে।

দূতাবাসের কাছে একটি স্পোর্টস সেন্টারের একজন গার্ড এএফপি-কে বলেন, “তিনি পর পর দু’টি বিস্ফোরণের শব্দ শুনতে পান। পুলিশ খুব দ্রুত ঘটনাস্থলে চলে আসে, এবং একজন ব্যক্তির লাশ নিয়ে যায়।

যুগস্লাভিয়া ভেঙ্গে পড়ার পর ৬ লাখ ৩০ হাজার জনসংখ্যা অধ্যুষিত দেশ মন্টিনেগ্রো ২০০৬ সালে স্বাধীনতা লাভ করে।

যমুনা অনলাইন: এফএইচ









Leave a reply