দ্বিতীয় দিনেই পরাজয়ের প্রহর গুনছে উইন্ডিজ

|

সেন্ট লুসিয়া টেস্টে প্রথম টেস্টের ২য় দিনেই ইনিংস ব্যবধানে জয়ের জন্য আর মাত্র ৬ উইকেট দূরত্বে দক্ষিণ আফ্রিকা। উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান কুইন্টন ডি ককের অপরাজিত ১৪১ রানের দুর্দান্ত ইনিংসের উপর ভর করে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে চালকের আসনে প্রোটিয়ারা। প্রথম ইনিংসে ২২৫ রানের লিডের পর ক্যারিবীয়দের ২য় ইনিংসেও নেমেছে ব্যাটিং ধস। ২য় দিনশেষে তাদের সংগ্রহ ৪ উইকেটে ৮২ রান। এখনো ১৪৩ রানে পিছিয়ে স্বাগতিকরা।

অধিনায়কত্বের চাপ থেকে মুক্তি পেয়েই কিনা, কুইন্টন ডি কক খেললেন ক্যারিয়ার সেরা ১৪১ রানের ইনিংস। এর পর কাগিসো রাবাদা এবং আইনরিখ নকিয়ার জোড়া আঘাতে বেসামাল হয়ে যায় উইন্ডিজের ২য় ইনিংসও। পিচ যে এখন অনেকটাই ব্যাটিং এর জন্য সহজ হয়েছে তা ডি ককের ব্যাটিং দেখে মনে হলেও পরক্ষণেই আবার ভ্রম তৈরি হয়েছে উইন্ডিজের ব্যাটিংয়ে।

দিনের প্রথম বলেই যেন সুরটা ঠিক করে ফেলেন ডি কক। কেমার রোচের খাটো লেন্থের বলকে কাট করে সীমানা ছাড়া করেই তিনি বার্তা দিলেন, পাল্টা আক্রমণ করতেই বেশি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন তিনি।

আগের দিনের ৪ উইকেটে ১২৮ রান নিয়ে ২য় দিনের খেলা শুরু করে ডুসেন আর ডি কক। ডুসেন দ্রুত ফিরে গেলেও ১৪১ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলে মাঠ ছাড়েন ডি কক। তবে বাকীরা ব্যর্থ হওয়ায় ৩২২ রানে অল আউট হয়ে যায় প্রোটিয়ারা। ক্যারিবীয়দের হয়ে ৪ উইকেট নেন জেসন হোল্ডার। তবে নজর কেড়েছেন অভিষিক্ত ক্যারিবীয় পেসার জ্যাডন সিলস। গুড লেন্থে বল করে প্রোটিয়া টপ অর্ডারের উইকেটগুলো নিয়েছেন তিনি।

২২৫ রানে পিছিয়ে থেকে ২য় ইনিংস শুরু করে আবারো খেই হারায় উইন্ডিজ। দলীয় ৫১ রানে টপ অর্ডারের ৪ ব্যাটারকে ফেরান রাবাদা আর নকিয়া। ৪ উইকেটে ৮২ রান সংগ্রহ করে দিন শেষ করেন রোস্টন চেজ আর জার্মেইন ব্ল্যাকউড। এর আগে লুঙ্গি এনগিডির ৫ আর নকিয়ার ৪ উইকেট শিকারে মাত্র ৯৭ রানে অল আউট হয় উইন্ডিজ।









Leave a reply