উখিয়ায় পুলিশের সাথে স্থানীয়দের সংঘর্ষ, আহত ২০

|

কক্সবাজার প্রতিনিধি:

কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার সোনারপাড়া গ্রামে একটি স্কুল ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনকে কেন্দ্র করে পুলিশ ও স্থানীয় লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে তিনজন গুলিবিদ্ধসহ অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে। স্কুলের তিন শিক্ষক ও পুলিশের কয়েকজন সদস্যও আহত হয়েছে।

রোববার বিকেল ৩টার দিকে এই ঘটনা ঘটে। এই ঘটনার পর থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন জেলা প্রশাসক মোঃ মামুনুর রশিদ ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিকুল ইসলাম।

উখিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আহমেদ সঞ্জুর মোর্শেদ জানান, সোনারপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের একটি নতুন ভবন নির্মাণকে কেন্দ্র করে দীর্ঘদিন ধরে বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয় লোকজনের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিলো।

এর মধ্যে প্রশাসনিক জটিলতা সম্পন্ন করে আজ রোববার ওই ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করতে যান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিজাম উদ্দিন আহমেদ ও সহকারী কমিশনার (ভূমি)। কিন্তু ওই সময় স্কুল ভবনের বিরোধীতাকারী লোকজন ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের বাধা দেন। তারা উত্তেজিত হয়ে নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) এর গাড়ি ভাঙচুর করেছে এবং স্কুলের শিক্ষক ও সরকারি কর্মকর্তাদের উপর হামলা চালায়।

খবর পেয়ে উখিয়া থানার একদল পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা চালায়। বিকেলে স্কুল ভবনের বিরোধিতাকারীরা সংঘবদ্ধ হয়ে হামলা চালালে পুলিশের সাথে তাদের সংঘর্ষ বাধে।

স্থানীয় লোকজন দাবি করেন, পুলিশের ছোঁড়া শটগানের গুলিতে মহিলাসহ স্থানীয় তিনজন গুলিবিদ্ধ হয়। এছাড়া আহত হয় আরও অন্তত ১৫ জন।

অন্যদিকে স্থানীয় লোকজনের হামলায় তিন শিক্ষকসহ পুলিশের কয়েকজন সদস্যও আহত হয়েছে বলে জানিয়েছেন উখিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আহমেদ সঞ্জুর মোর্শেদ।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply