কোন সন্দেশ করবে বাজিমাত, খেলা হবে নাকি জয় শ্রীরাম?

|

মিষ্টির নকশায় এবার লাগলো পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচনের রং। রাজ্যটির বিভিন্ন দোকানে মিলছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, রাজনৈতিক দল এবং তাদের জনপ্রিয় শ্লোগান আঁকানো মিষ্টি। অবশ্য, ক্রেতাদের নজর কাড়ছে ‘খেলা হবে’ আর ‘জয় শ্রীরাম’ লেখা সন্দেশ।

রসনাবিলাসে বরাবরই সুখ্যাতি বাঙ্গালির। তার ওপর যদি শেষপাতে পড়ে মিষ্টি; তাহলে-তো কথাই নেই। সেই মিঠাইয়ে এবার লাগলো পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনের হাওয়া।

মিষ্টির নকশা-রং আর ছবিজুড়ে বিজেপি-তৃণমূল কংগ্রেস-সিপিএম। শুধু দলীয় প্রতীক বা প্রার্থীর ছবিতেই আটকে নেই কারিগররা। এবারের মিষ্টিতে ভোটের জনপ্রিয় সব শ্লোগান কাড়ছে নজর। তাই ক্রেতারাও ঝুঁকছেন ‘খেলা হবে’ বা ‘জয় শ্রী রাম’ লেখা সন্দেশের দিকে।

এ বিষয়ে এক স্থানীয় বাদিন্দা বলেন, বাংলা- রাজনীতির মাঠ থেকে মিষ্টির দোকানেও খেলা শুরু হয়ে গেছে। এরমাধ্যমে ঐক্য স্পষ্ট হচ্ছে। আমার দৃষ্টিতে, মানুষকে ভোটকেন্দ্রে যাওয়ার জন্য উদ্বুদ্ধ করতে এটা বেশ ভালো উদ্যোগ। সুস্বাদু খাবারের মাধ্যমে এই প্রচারণা নিঃসন্দেহে গণতান্ত্রিক বার্তা বহন করছে।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, ভারতে ভোট হচ্ছে মহোৎসব। সেই আয়োজনকে কাজে লাগানোর ফলেই বাড়ছে ক্রেতা আকর্ষণ।

বলরাম মল্লিক ও রাধারমন মল্লিক সুইটশপের ম্যানেজার কনক মুখার্জি জানান, প্রত্যেক মৌসুম আর উৎসবেই নিত্যনতুন মিষ্টির নকশা করা হয়। আর এবারতো পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভা নির্বাচন, যা গোটা ভারতবর্ষের সবচেয়ে বড় আকর্ষণ। এ কারণেই মিষ্টির নকশায় এঁকেছি দলীয় প্রতীক-শ্লোগান এবং নেতাদের মুখাবয়ব।

পশ্চিমবঙ্গে ২৭ মার্চ থেকে, আট ধাপে হবে বিধানসভা নির্বাচন। ফল ঘোষণা ২ মে। সবশেষ জনমত জরিপ অনুসারে তৃতীয়বারের মতো রাজ্যের ক্ষমতায় মমতা ব্যানার্জিকে দেখতে চান ৪৩ শতাংশ ভোটার।

অন্যদিকে বিজেপির পাল্লায় এখন পর্যন্ত ২৪ ভাগ বঙ্গবাসীর সমর্থন।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply