গোপনেই চলছিল ‘পপি চাষ’

|

জয়পুরহাট প্রতিনিধি:

জয়পুরহাটে সদর উপজেলার বনখুর এলাকায় গোপনে চাষ হচ্ছিল নিষিদ্ধ হেরোইন ও আফিমের উপাদান পপি ফসল। গত দু’বছর ধরে এই ফসল চাষ হলেও কৃষি বিভাগের জানাই ছিল না এ সম্পর্কে।

খবর পেয়ে রোববার সকালে ওই ক্ষেতে অভিযান চালিয়ে পপি গাছগুলো উদ্ধার করে ধ্বংস করে র‌্যাব সদস্যরা। এসময় পপি চাষ করা ৫ জনকে আটক করেছে র‌্যাব। আটকরা হলো, সদর উপজেলার বনখুর গ্রামের মৃত বিপুল চন্দ্র দাসের ছেলে শ্রী রাজেন্দ্রনাথ দাস (৬০), মৃত রুপচাঁন মণ্ডলের ছেলে নইমুদ্দিন মণ্ডল (৬০), বড়তাজপুর গ্রামের মৃত ইয়াকুব আলীর ছেলে মো. গোলাম মোস্তফা (৬৫), পাঁচবিবি উপজেলার পূর্ব বালিঘাটা গ্রামের আব্দুল রউফের ছেলে মো. রিপন সর্দার (৩৭) ও পাঁচবিবি উপজেলার বালিঘাটা গ্রামের মৃত কুমুন্ড বিহারী দাসের ছেলে শ্রী নেপাল চন্দ্র দাস (৫২)।

র‌্যাব জানায়, আটক চাষীরা ভারত থেকে বীজ এনে এই ফসল চাষ করে এবং অন্য চাষীদের তা চাষে প্রলুব্ধ করে আসছিল।

জয়পুরহাট র‌্যাব ক্যাম্পের অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহায়মেনুর রশিদ জানান, পপি চাষের সূত্র ধরে জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থা এবং উপজেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় নিশ্চিত হয়ে তারা সাত বিঘা জমি থেকে পপি গাছ উদ্ধার করে ধ্বংস করে। বিষয়টি মাদকদ্রব্য অধিদফতরকে জানানোসহ থানায় মামলা দায়ের করা হবে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply