মুখে বডি লোশন নয়

|

মুখে বডি লোশন নয়

শীতকালে আমাদের ত্বক অনেক রুক্ষ ও শুষ্ক হয়ে যায়। এসময় ত্বকের দরকার বাড়তি যত্ন। আর ত্বক সজীব রাখতে আমরা বডি লোশন, অলিভওয়েল ইত্যাদি ব্যবহার করে থাকি। তবে অনেকে মুখেও বডি লোশন মাখেন। কিন্তু বডি লোশন কি মুখে মাখা উচিত?

স্বাস্থ্য ও জীবনধারা বিষয়ক ওয়েবসাইট বোল্ডস্কাইয়ের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বডি লোশন ত্বকে ময়েশ্চারাইজিংয়ের কাজ করে, কিন্তু মুখে লাগালে তা ত্বকের উপকার করে না। বডি লোশন মুখে মাখলে ত্বকে ব্রণ, র‍্যাশ ও বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। আসুন জেনে নেই যেসব কারণে ত্বকে বডি লোশন ব্যবহার করা উচিত নয়-

* শরীর ও মুখের ত্বকের পার্থক্য:
আমাদের মুখ ও দেহের ত্বক আলাদা। শরীরের বাকি অংশের ত্বক মোটা। মুখের ত্বক পাতলা হয়। শরীরের বাকি অংশের তুলনায় মুখের ত্বক বেশি কোমল হয়। মুখে প্রচুর সিবাম উৎপন্ন হয়, তবে শরীরের বাকি অংশে সিবাম খুব বেশি উৎপন্ন হয় না। তাই মুখের ত্বকের যত্ন নেওয়া জরুরি।

* অ্যালার্জি:
বডি লোশন ব্যবহারের ফলে মুখে অ্যালার্জি হতে পারে। বডি লোশনে এমন কেমিক্যাল ব্যবহার করা হয়, যা মুখের ত্বকের জন্য খুবই খারাপ। যাদের ত্বক সংবেদনশীল, তাদের বডি লোশন মুখে ব্যবহার করা উচিত নয়।

* ত্বকের ছিদ্রে সমস্যা:
মুখে বডি লোশন লাগালে ত্বকের ছিদ্র আটকে যেতে পারে এবং মুখে ধুলো-ময়লা জমতে পারে, যা ত্বকের জন্য খুবই ক্ষতিকর। মুখের ত্বক ভালো রাখতে তাই ফেস ক্রিম ব্যবহার করতে হবে, বডি লোশন নয়।

* বডি লোশনে বেশি কেমিক্যাল থাকে:
বডি লোশনে ফেস ক্রিমের চেয়ে বেশি কেমিক্যাল থাকে, যা ত্বকের জন্য খুবই ক্ষতিকর। কখনো কখনো বডি লোশন প্রয়োগ করার ফলে ত্বকে জ্বালা এবং লালচে ভাবও দেখা দিতে পারে। তাই বডি লোশন মুখে ব্যবহার করা উচিত নয়।









Leave a reply