কোম্পানীগঞ্জে ইউএনওর চাঁদাবাজির বিরুদ্ধে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন

|

নোয়াখালী প্রতিনিধি:

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ফয়সাল আহমেদ’র বিরুদ্ধে নানা অনিয়মের অভিযোগে মানববন্ধন করেছে উপজেলা ছাত্রলীগ।

একইসাথে ছাত্রলীগের দাবির সাথে সংহতি প্রকাশ করছে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আ.লীগ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠন, বসুরহাট বাজারের ব্যবসায়ী এবং সাংবাদিক সংগঠনগুলো।

মঙ্গলবার সকাল ১১টায় কোম্পানীগঞ্জ ইউএনও কার্যালয়ের সামনে ইউএনওর জাতীয় দিবসের নামে চাঁদাবাজি, স্বেচ্ছাচারিতা, অনিয়ম, দুর্নীতি, দায়িত্বে অবহেলা ও ম্যাজিস্ট্রেসি ক্ষমতার অপব্যবহার করে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের নাজেহাল করার প্রতিবাদে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে উপজেলা ছাত্রলীগের তিন হাজার নেতাকর্মী অংশ নেয়।

এসময় বক্তব্য রাখেন, নোয়াখালী জেলা আ.লীগের সহ সভাপতি ও বসুরহাট পৌরসভা মেয়র আব্দুল কাদের মির্জা, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আ.লীগের সভাপতি খিজির হায়াত খান, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নিজাম উদ্দিন মুন্না, প্রেসক্লাব কোম্পানীগঞ্জের সভাপতি হাসান ইমাম রাসেলসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

বক্তারা ইউএনও’র প্রত্যাহার ও তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করার দাবি জানান। বক্তারা আরও বলেন, বর্তমানে অভিযুক্ত ইউএনও সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ ও অস্থিতিশীল পরিবেশ সৃষ্টির পায়তারা করছে। মানববন্ধন থেকে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ইউএনও কর্তৃক ম্যাজিস্ট্রেসি ক্ষমতার অপব্যবহার করে সকল দুর্নীতি, অনিয়ম ও স্বেচ্ছচারিতার তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানান।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নুর নবী চৌধুরী, বসুরহাট পৌরসভা আ.লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এবিএম ছিদ্দিক, সাধারণ সম্পাদক আবুল খায়ের, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আজম পাশা চৌধুরী রুমেল, সাধারণ সম্পাদক প্রভাষক গোলাম ছারওয়ার।

তবে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফয়সাল আহমেদ দাবি করে বলেন, তার বিরুদ্ধে এসব অভিযোগ সত্য নয়।









Leave a reply