ধেয়ে আসছে আম্পান, নিরাপদ আশ্রয়ে যেতে চলছে মাইকিং

|

বাংলাদেশের দিকে এগিয়ে আসছে অতিপ্রবল ঘূর্ণিঝড় আম্পান। সকালে এটি পায়রা সমুদ্র বন্দর থেকে ৭২৫ কিলোমিটার কিলোমিটার দক্ষিণ পশ্চিমে অবস্থান করছিলো। কেন্দ্রের কাছে বাতাসের সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ২২৫ কিলোমিটার। যা ২৪৫ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে।

এরইমধ্যে বাগেরহাটের কিছু এলাকায় বৃষ্টি হয়েছে। বইছে ঝড়ো হাওয়াও।

আবহাওয়া অফিসের তথ্যমতে, কাল ভোর থেকে সন্ধ্যার মধ্যে যেকোনো সময় উপকূলে আঘাত হানতে পারে আম্পান। এসময় ৫ থেকে ১০ ফুট উঁচু জলোচ্ছ্বাসের আশঙ্কা রয়েছে। মোংলা ও পায়রা বন্দরকে ৭ এবং চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার সমুদ্র বন্দরকে ছয় নম্বর বিপদ সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। সাত নম্বর বিপদ সংকেতের আওতায় আছে উপকূলের ১৪ জেলা।

ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা থেকে মানুষকে আশ্রয় কেন্দ্রে সরিয়ে নেয়া হচ্ছে গতকাল থেকেই। মাইকিংও করা হচ্ছে। করোনাভাইরাসের এই সময়ে সাইক্লোন শেল্টারগুলোতে শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিত করাই বড় চ্যালেঞ্জ হিসেবে দেখছে প্রশাসন।









Leave a reply