ভাঙা হাত রেখে ভালো হাতে প্লাস্টার!

|

স্টাফ রির্পোটার, নেত্রকোনা
নেত্রকোনার মদন উপজেলার ৫০ শয্যা হাসপাতালে মঙ্গলবার বিকালে ইমা আক্তার (২) নামের এক শিশুর ভাঙ্গা বাম হাত রেখে ভালো ডান হাতে প্লাস্টার করে বাড়ি পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে। ওই হাসপাতালের সাব-অ্যাসিস্ট্যান্ট মেডিকেল অফিসার মোঃ মিরাজুল ইসলাম মিরাজ এই ঘটনা ঘটিয়েছেন।

শিশু ইমা আক্তার মদন উপজেলার দক্ষিণপাড়া গ্রামের ইদুচানের মেয়ে।

শিশুর ইমা আক্তারের বাবা ইদুচান জানান, “আমার মেয়ে মঙ্গলবার দুপুরে ঘরের চৌকি থেকে পড়ে বাম হাতে ব্যাথা পায়। এরপর তাকে মদন হাসপাতালে নিয়ে গেলে জরুরী বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক হাতের এক্সরে করার জন্য বললে আমি তা করে নিয়ে আসি। পড়ে ডাক্তার মিরাজ ভাঙ্গা বাম হাত রেখে ডান হাতে প্লাস্টার করে আমাদের বাড়ি পাঠিয়ে দেয়। বাড়ি এসে দেখতে পাই বাম হাত ফুলে যাচ্ছে। পুনরায় সন্ধ্যায় আমার মেয়েকে হাসপাতালে নিয়ে গেলে ডান হাতের প্লাস্টার খুলে বাম হাতে প্লাস্টার করে দেয়া হয়।

এ ব্যাপারে সাব-অ্যাসিস্ট্যান্ট মেডিকেল অফিসার মোঃ মিরাজুল ইসলাম মিরাজ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এ বিষয়ে টিএইচসি স্যারের সাথে কথা বলেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও প.প. কর্মকর্তা ডাক্তার ফখরুল হাসান চৌধুরী টিপু জানান, শুনেছি ইমা আক্তার নামের এক শিশুর ভাঙ্গা বাম হাত রেখে ডান হাতে প্লাস্টার করা হয়েছে। যদি পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয় তদন্ত করে যথাযত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply