বগুড়ায় হোম কোয়ারেন্টাইনে বিদেশ ফেরত ৩৪ জন

|

বগুড়া ব্যুরো
বগুড়ায় বিদেশ ফেরত ৩৪ জন হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন, এমন তথ্য জানিয়েছে সিভিল সার্জন অফিস। তবে দেশে ফেরা এই প্রবাসীরা যথাযথভাবে হোম কোয়ারেন্টাইনের নিয়ম-কানুন মানছেন কী না তা নিয়ে সংশয়ে রয়েছেন খোদ জেলার সিভিল সার্জনও। এক্ষেত্রে হোম কোয়ারেন্টাইনের পরিবর্তে বিদেশ ফেরতদের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে রাখাটা বেশি কার্যকর হবে বলেও মতামত দিয়েছেন এই চিকিৎসক।

গেলো রোববার ইতালি থেকে ঢাকায় ফিরে রাতেই বগুড়ায় চলে আসেন এক প্রবাসী। ওঠেন শহরে নিজের বাসায়। মঙ্গলবার দুপুরে স্থানীয়রা বিষয়টি জানার পর গুজব ছড়িয়ে পড়ে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত একজন বাসায় ফিরেছেন। গণমাধ্যমকর্মীরা ঘটনাস্থলে যাবার পর স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মীরা সেখানে যান এবং তাকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার পরামর্শ দেন। অবশ্য ওই প্রবাসী দাবি করেছেন, তিনি বাড়ি ফেরার পর থেকে তার ঘরেই রয়েছেন, বাইরে যান নি।

সিভিল সার্জন ডাক্তার গাউসুল আজিম চৌধুরী জানান, সাম্প্রতিক সময়ে বিদেশ থেকে কত জন বগুড়া জেলায় ফিরেছেন তার সুনির্দিষ্ট কোনো তথ্য তাদের কাছে নেই। তারা যেখানে খবর পাচ্ছেন সেখানে স্বাস্থ্যকর্মী পাঠাচ্ছেন। বিমান বন্দর বা স্থল বন্দর থেকে জেলাভিত্তিক দেশে ফেরা প্রবাসীদের তথ্য দেয়া হলে তারা সব প্রবাসীকে পর্যবেক্ষণে রাখতে পারতেন।

স্থানীয় স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্যমতে, মঙ্গলবার পর্যন্ত বগুড়ায় ৩৬ জন বিদেশ ফেরত নাগরিক হোম কোয়ারেন্টাইনের আওতায় এসেছেন। এদের মধ্য ২ জনের ১৪ দিন মেয়াদ শেষ হয়েছে এবং তারা সুস্থ রয়েছেন। বাকি ৩৪ জনের মধ্যে নন্দীগ্রাম উপজেলায় ১৪ জন, সদর উপজেলায় ৬ জন, সোনাতলা উপজেলায় ৬ জন, গাবতলী উপজেলায় ৫ জন, শিবগঞ্জ উপজেলায় ৩ জন এবং সারিয়াকান্দি ও ধুনট উপজেলায় রয়েছেন ১ জন করে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply