ভৈরবে হোম কোয়ারেন্টাইনে আরও ৯জন

|

ভৈরব প্রতিনিধি:
ভৈরবে আরও ৯ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। এর আগে গতকাল পর্যন্ত ৩৪ জন হোম কোয়ারেন্টাইনে ছিল। আজ বৃহস্পতিবার এ সংখ্যা দাঁড়াল ৪৩ জনে।

কোয়ারেন্টাইনে থাকা সবাই ইতালীসহ বিদেশ ফেরত বলে জানান ডাক্তাররা। হোম কোয়ারেন্টাইনের প্রধান পর্যবেক্ষক হিসেবে নেতৃত্ব দিচ্ছেন পৌর ও ইউনিয়ন স্বাস্থ্য সহকারীরা। করোনা প্রতিরোধ কমিটির পক্ষ থেকে সার্বক্ষণিক তাঁদের খোঁজ নেওয়া হচ্ছে।

এদিকে করোনা প্রতিরোধ কমিটির ব্যবস্থাপনায় ৫০ শয্যার একটি আইসোলেশন ইউনিট প্রস্তুত করা হয়েছে। ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের বাসস্ট্যান্ড লাগোয়া স্থানে নির্মাণাধীন ট্রমা সেন্টারে আইসোলেশন ইউনিট খোলা হয়েছে। করোনা রোগ প্রতিরোধে শয্যা প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

করোনা ঝুঁকি রয়েছে এমন লোকজনকে তাদের বাড়ীতে পর্যবেক্ষনে রাখা হয়। ব্যতিক্রম হচ্ছে কিনা- এই তথ্য নিচ্ছে স্বাস্থ্য সহকারীরা। জনপ্রতিনিধি ও সমাজ সচেতনদেরও এই কাজে সম্পৃক্ত করা হয়েছে। ব্যতিক্রম হলেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ফোন আসছে এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

ডাঃ বুলবুল আহমেদ জানান, হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা লোকদের বেশির ভাগই ইতালী থেকে আসা। তাঁদের বিষয়ে আমাদের নির্দেশনা স্পষ্ট। সবাইকে নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত ঘরের নির্দিষ্ট কক্ষে থাকতে হবে। ব্যতিক্রম হলে পুলিশ ডাকারও সুযোগ রয়েছে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply