করোনা সন্দেহে মোংলা বন্দরে ৩ বিদেশি নাবিক পর্যবেক্ষণে

|

বৃহস্পতিবার (৫ মার্চ) সকাল থেকে করোনাভাইরাস সন্দেহে ইন্দোনেশিয়া থেকে ২৪ হাজার মেট্রিক টন কয়লা নিয়ে মোংলা বন্দরের পশুর চ্যানেলে হাড়বাড়িয়া এলাকায় অবস্থানরত মার্শাল আইল্যান্ড পতাকাবাহী ‘এমভি সেরিনিটাস এন’ জাহাজের কাজ বন্ধ রেখেছে মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষ। মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার মাষ্টার কমান্ডার ফখর উদ্দিন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষ জানায়, গত বুধবার (৪ মার্চ) ইন্দোনেশিয়া থেকে ২৪ হাজার মেট্রিক টন কয়লা নিয়ে মোংলা বন্দরে আসে ‘এমভি সেরিনিটাস এন’ জাহাজ। জাহাজটি বন্দর চ্যানেলের হাড়বাড়িয়ার ৩ নম্বর মুরিং বয়ায় অবস্থান করছে। ওই জাহাজে ফিলিপাইনের নাগরিক তিন নাবিক হঠাৎ জ্বরে আক্রান্ত হলে তাদের পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে বন্দর স্বাস্থ্য বিভাগ। সতর্কতা হিসেবে ওই তিন নাবিক করোনাভাইরাস আক্রান্ত কি না তা নিশ্চিত হতে জাহাজেই তাদের পর্যবেক্ষণ ইউনিটে থাকতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। একই সাথে জাহাজ থেকে কয়লা খালাশে নিয়োজিত সকল শ্রমিক নামিয়ে জাহাজের সকল প্রকার কার্যক্রম বন্ধ রাখা হয়েছে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মোংলা পোর্ট হেলথ কর্মকর্তা ডা. সুফিয়া খাতুন মুঠো ফোনে সাংবাদিকদের বলেন, মার্শাল আইল্যান্ড পতাকাবাহী ‘এমভি সেরিনিটাস এন’ জাহাজের তিন নাবিক ফিলিপাইনের নাগরিক জ্বরে আক্রান্ত হলে আমরা তাদের পরীক্ষা করি। প্রাথমিক ভাবে তাদের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়নি। তবে, তাদের জাহাজেই পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। ওই জাহাজে ২০ জন বিদেশী নাবিক রয়েছে।

এদিকে সিলেটে জ্বর নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি দুবাই ফেরত প্রবাসীর নমুনা সংগ্রহ করেছে আইইডিসিআর-এর একটি টিম। চিকিৎসকরা জানান, গত ২৯ ফেব্রুয়ারি দেশে ফেরেন ঐ ব্যক্তি। জ্বর, কাশি ও মাথাব্যাথা নিয়ে বুধবার দুপুরে ভর্তি হন নগরীর রাগীব-রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। ঐ রাতেই তাকে নেয়া হয় সিলেট এমএজি ওসমানি মেডিকেলে। পরে তাকে ভর্তি করা হয় নগরীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে। সেখানে তাকে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply