স্ত্রীকে হত্যার পর থানায় গিয়ে স্বামীর আত্মসমর্পণ

|

আশুলিয়ায় গভীর রাতে পারিবারিক কলহের জেরে স্ত্রীকে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করেছে স্বামী। এঘটনায় নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।
রবিবার দিবাগত মধ্যরাতে আশুলিয়ার নরসিংপুরের ইটখোলা এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।

পুলিশ নিহতের স্বজনদের বরাত দিয়ে জানায়, গত প্রায় ২-৩ বছর পূর্বে পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয় জামালপুরের মেলান্দহ উপজেলার চরভদ্রাসন গ্রামের শামসুন্নাহারের সাথে পার্শবর্তী এলাকার বাঘাডোবা গ্রামের জলিল হোসেনের। এরপর থেকেই জলিল নানা সময় যৌতুকের জন্য শামসুন্নাহারকে নির্যাতন করতো। তাদের মধ্যে কলহের কারণে গত এক বছর পূর্বেও শামসুন্নাহার তার বাবার বাড়িতেই ছিলো। পরে তিন মাস পূর্বে তাকে সাভারের আশুলিয়ায় নিয়ে আসেন স্বামী জলিল। এরপর শামসুন্নাহার গর্ভবর্তী হলেও নানা তুচ্ছ কারণে তাকে নির্যাতন করা হতো।

সর্বশেষ রবিবার দিবাগত মধ্যরাতে শামসুন্নাহার মারা গেছে বলে বাড়িতে ফোন করে জানায় তার স্বামী এবং নিজে আশুলিয়া থানায় গিয়ে হত্যার কথা স্বীকার করলে পুলিশ তাকে আটক করে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply