শুদ্ধভাবে শুদ্ধি অভিযান চললে মন্ত্রীসভার অর্ধেকই গ্রেফতার হবে: গয়েশ্বর

|

বগুড়া ব্যুরো:

শুদ্ধি অভিযানের নাটক করে সরকার জনগণের দৃষ্টি অন্যদিকে নেয়ার চেষ্টা করছে। এটি শুদ্ধি অভিযান নয়, এটি আওয়ামী লীগের গৃহবিবাদের প্রতিফলন। শুদ্ধভাবে শুদ্ধি অভিযান চললে মন্ত্রীসভার অর্ধেকেরও বেশি সদস্য গ্রেফতার হবেন বলে মন্তব্য করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়।

রোববার বগুড়ায় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে জেলা যুবদলের সমাবেশে তিনি এসব মন্তব্য করেন।

জেলা যুবদলের আহ্বায়ক খাদেমুল ইসলাম খাদেমের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন গয়েশ্বর চন্দ্র রায়।

তিনি বলেন, জনগণকে শুদ্ধি অভিযানের কথা বলা হলেও এটি আসলে আওয়ামী লীগের নিজেদের ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে ঝগড়ার প্রকাশ্যরূপ। শুদ্ধি অভিযান যদি সত্যিই শুদ্ধ হয়, তাহলে প্রধানমন্ত্রীরও পরিত্রাণ পাবার উপায় নেই। তিনি শুদ্ধি অভিযানে নাম আসা রাজনীতিবিদ ও সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রকাশের দাবিও জানান।

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টার সমালোচনা করে গয়েশ্বর বলেন, শেয়ার মার্কেটের হাজার হাজার কোটি টাকা লুটপাট করার পরও সরকার তাকে উপদেষ্টা নিয়োগ দিয়েছে। এটিই আওয়ামী লীগের লুটপাটের প্রকৃত চিত্র।

সরকার এবং সরকারের পক্ষে কিছু বুদ্ধিজীবি ও গণমাধ্যম বিএনপিকে নিয়ে নির্লজ্জ মিথ্যাচার করে যাচ্ছে উল্লেখ করে এই বিএনপি নেতা বলেন, মিথ্যা বলার জন্য কোনও আন্তর্জাতিক পুরস্কারের প্রচলন থাকলে শেখ হাসিনা প্রতিমাসেই সেটি পেতেন।

সমাবেশ শেষে দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে যুবদলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর কেক কাটেন গয়েশ্বর চন্দ্র রায়।









Leave a reply