হেলপারকে হত্যা করে বাস ছিনতাই’র চেষ্টা

|

ফরিদপুর প্রতিনিধি
ফরিদপুরের বাসের হেলপার সাদ্দাম হোসেন (২০) কে হত্যা করে বাসটি ছিনতাই এর চেষ্টা করেছে দুর্বৃত্তরা। বৃহস্পতিবার সকালে নিউ নুপুর (ফরিদপুর-ব-১১-০০৮৮) পরিবহনের বাসটি ভাঙ্গা বিশ্বরোড চৌরাস্তা মোড় থেকে উদ্ধার করে ভাঙ্গা হাই-ওয়ে ও লোকাল থানা পুলিশ। এসময় বাসের ভেতরে থাকা বাসের হেলপার সাদ্দাম হোসেনর হাত পা ও মাথা বাধা লাশ উদ্ধার করা হয়। সে মধুখালি থানার আড়পাড়া গ্রামের আতিয়ার রহমানের ছেলে।

জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ভাঙ্গা সার্কেল) গাজী রবিউল ইসলাম বলেন, ফরিদপুর থেকে বেনাপোল রোডে চলাচলকারি পরিবহনটি বুধবার রাতে ফরিদপুর বাসষ্ট্যান্ড থেকে ছিনতাই করে চক্রটি।

বাসটির ভেতরে থাকা হেলপারকে নির্মম ভাবে হত্যা করে বাসটি নিয়ে পালিয়ে যাচ্ছিল ছিনতাইকারি দল। ফরিদপুর থেকে চালিয়ে ভাঙ্গা বিশ্বরোড মোড়ে এসে বাসটির চালক ভুল করে নির্মানাধীণ এলাকায় প্রবেশ করে ফেলে। সেখান থেকে বাসটি ঘোরানোর কোন ব্যবস্থা না থাকায় বাসটি ফেলেই ছিনতাইকারি চক্রটি পালিয়ে যায়।

বাসের মালিক ফরিদপুর শহরের বাসিন্দা হাজী জয়নাল জানায়, গত দুই দিন আগে হেলপার হিসাবে সাদ্দাম কাজে যোগ দিয়েছিল। বাসের ভেতরে ঘুমানো ছিল হেলপার। বুধবার রাতেই ফরিদপুর থেকে বাসটি ছিনতাই করে পালিয়ে যাচ্ছিল।

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী সাঈদুর রহমান বলেন, সকালে বাসটি পরিত্যক্ত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে এলাকাবাসি হাই-ওয়ে থানাকে খবর দেয়। হাই-ওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আতাউর রহমান ঘটনাস্থলে এসে বাসের ভেতরে লাশ দেখতে পায়।

এই ঘটনায় ভাঙ্গা থানায় একটি মামলা দায়ের এর প্রস্তুতি চলছে একই সাথে জড়িতদের শনাক্ত ও গ্রেফতারে পুলিশি কার্যক্রম চলমান রয়েছে।









Leave a reply