গৃহবধূকে ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় সাত আসামির মৃত্যুদণ্ড

|

জয়পুরহাট প্রতিনিধি
জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার দেওড়া আশ্রয়ণ কেন্দ্র’র গৃহবধূ আরতি রাণীকে ধর্ষণ করে হত্যা মামলায় সাত আসামিকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে জেলা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল এর বিচারক ড.এ.বি.এম মাহমুদুল হক। একই সাথে দুজনের পাঁচ লক্ষ এবং পাঁচ জনের এক লক্ষ টাকা করে জড়িমানা করেছেন। মঙ্গলবার দুপুরে এক জনাকীর্ণ আদালতে তিনি ওই রায় দেন বিচারক।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন, আক্কেলপুর উপজেলার মারমা গ্রামের সোহেল তালুকদার, দেওড়া সোনারপাড়া গ্রামের আফজাল হোসেন, মজিবর রহমান, একই গ্রামের গুচ্ছগ্রামের রাহিন, আজিজার রহমান, সাখিদার পাড়ার ফেরদৌস আলী ও জগতি গ্রামের রুহুল আমীন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, ২০১৬ সালের ৮ অক্টোবর রাতে দেওড়া আশ্রয়ণ কেন্দ্র’র উজ্জল মোহন্তের স্ত্রী আরতী রাণীকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে আসামিরা গণধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে স্থানীয়রা তাকে মুমূর্ষ অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়ার পথে আরতী রাণী মারা যায়। এ ঘটনায় ১০ অক্টোবর আরতী রাণীর স্বামী উজ্জল মোহন্তা বাদী হয়ে দণ্ডপ্রাপ্ত সাত জনকে আসামি করে আক্কেলপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেন। মামলটি তদন্ত শেষে ওই বছরই চার্জশিট দাখিল করেন আক্কেলপুর থানার তৎকালীন পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) রাইসুল ইসলাম।

দীর্ঘ শুনানি ও স্বাক্ষী প্রমাণের ভিত্তিতে আজ এই রায় দেন আদালত।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply