ভেঙেই গেলো মিম-সিদ্দিকের সংসার

|

শেষ পর্যন্ত বিচ্ছেদ হলো সিদ্দিক-মিমের। ব্যক্তি-স্বাধীনতায় বাধা দেয়া, নির্যাতন ও পরকীয়ার অভিযোগ তুলে অভিনেতা সিদ্দিকুর রহমানকে ডিভোর্স দেন মডেল মারিয়া মিম। গতকাল সোমবার ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে মারিয়া মিম এ কথা জানান।

জানা যায়, গত শনিবার (১৯ অক্টোবর) তালাকনামায় স্বাক্ষর করেছেন মিম। কাগজটি সিদ্দিকের কাছে পৌঁছবে ২৩ অক্টোবর। দু’জনের সিদ্ধান্তেই ডিভোর্স হয়েছে বলে জানান তিনি।

২০১২ সালের ২৪মে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত স্পেনের নাগরিক মারিয়া মিমকে বিয়ে করেন সিদ্দিক। ২০১৩ সালের ২৫ জুন তারা পুত্রসন্তানের বাবা-মা হন।

গত তিন মাস ধরে আলাদা ছিলেন অভিনেতা সিদ্দিক ও মারিয়া মিম। শোনা যাচ্ছিল ভাঙনের সুর। সম্প্রতি মডেলিং করতে না দেয়ার অভিযোগে সিদ্দিককে ডিভোর্স দেবেন বলে জানান মারিয়া মিম। তবে সিদ্দিকও চাননি সংসার ছেড়ে মডেলিং করুক মিম।

মিম জানান, দাম্পত্য কলহের জেরে অনেক কিছুই তারা মানিয়ে নিতে পারছিলেন না। তিনি চান শোবিজে কাজ করতে। কিন্তু সিদ্দিকের এতে আপত্তি।

মিমের অভিযোগ, কিছু দিন আগেই একটি বিজ্ঞাপনে কাজ করার কথা থাকলেও বিজ্ঞাপনটির নির্মাতা রানা মাসুদকে সিদ্দিকই প্রভাবিত করেছেন তাকে বাদ দিয়ে অন্য কাউকে নেয়ার জন্য।

মিম বলেন, সিদ্দিক নিজেও একজন শোবিজের মানুষ। অভিনয় করে, মডেলিং করে। এতে আমার কোনো আপত্তি নেই। স্বামী হিসেবে ওর কাছে কোনো সহযোগিতা পাই না। সে জন্যই আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছি বিচ্ছেদের।

বর্তমানে একমাত্র পুত্র আরশ হোসেন তার বাবা সিদ্দিকের সঙ্গেই থাকছে। ডিভোর্সের পর নিজেকে শোবিজে ব্যস্ত রাখতে চান মিম।


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply