সুয়ারেজের জোড়া গোলে বার্সার জয়

|

প্রথমার্ধে বার্সেলোনাকে নিয়ে খেলল ইন্টার মিলন। গোল ব্যবধানে এগিয়ে থাকল তারা। তবে দ্বিতীয়ার্ধে উল্টো চিত্র। এ অর্ধে তাদের নিয়ে খেলল বার্সা। শেষ অবধি রোমাঞ্চকর ম্যাচে জয় তুলে নিলেন কাতালানরা। দ্য ব্ল্যাক অ্যান্ড ব্লুজদের ২-১ গোলে হারিয়েছেন তারা।

চ্যাম্পিয়নস লিগের ‘এফ’ গ্রুপের ম্যাচে বুধবার রাতে ক্যাম্প ন্যুতে শুরুটা দুর্দান্ত করে ইন্টার। তৃতীয় মিনিটেই গোল করে বার্সেলোনাকে কাঁপিয়ে দেন তারা। অ্যালেক্সিস সানচেজের বাড়ানো বল ধরে ডি-বক্সে ঢুকে ডিফেন্ডারদের কোনো সুযোগ না দিয়ে কোনাকুনি শটে নিশানাভেদ করেন লাউতারো মার্তিনেজ।

পিছিয়ে পড়ে আক্রমণের গতি বাড়ায় বার্সা। স্বভাবতই খেলা ওপেন হয়ে যায়। এ সুযোগে স্বাগতিক শিবিরে ভীতি ছড়ান অতিথিরা। তবে আর গোল আদায় করতে পারেননি তারা। ফলে ১-০ ব্যবধান নিয়ে বিরতিতে যেতে হয় তাদের। এ অর্ধে গোলমুখ খুলতে পারেনি বার্সাও।

দ্বিতীয়ার্ধে ছন্দে ফিরে বার্সা। ৫৩ মিনিটে সার্জিও বুসকেটসকে বসিয়ে আর্তুরো ভিদালকে নামান স্বাগতিক কোচ। এতে তাদের খেলায় গতি আসে। সেখানে নির্জীব হয়ে পড়ে ইন্টার। এরই মধ্যে ৫৮ মিনিটে লুইস সুয়ারেজের অসাধারণ গোলে সমতায় ফেরে বার্সেলোনা। ভিদালের ক্রসে ডি-বক্সের বাইরে থেকে বুলেট গতির সাইড ভলিতে ঠিকানা খুঁজে নেন তিনি।

ম্যাচের শুরু থেকে নিষ্প্রভ ছিলেন আঁতোয়া গ্রিজম্যান। ৬৬ মিনিটে উসমানে ডেম্বেলে নামলে আরও গতি পায় বার্সা। এ সময়ে নিজের খোলস ছেড়ে বেরিয়ে আসেন লিওনেল মেসি। স্বভাবতই সাফল্য আসে। ৮৪ মিনিটে দলের জয়সূচক গোলের উৎস ছিলেন খুদে জাদুকর।

কয়েকজন ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে ডি-বক্সে বল বাড়ান চোট কাটিয়ে ফেরা এ ফুটবলার। দুর্দান্ত প্লেসিং শটে জাল খুঁজে নেন বন্ধু সুয়ারেজ। তাতে ইউরোপসেরা টুর্নামেন্টের চলতি মৌসুমে প্রথম জয়ের দেখা পান আর্নেস্তো ভালবার্দের শিষ্যরা।









Leave a reply